সাতক্ষীরার সদর থানায় ১৫ চোরাচালানির আত্মসমর্পন আর নয় চোরাচালান, এবার স্বাভাবিক জীবন

74
gb

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি:

“আর নয় চোরাচালান”। এবার স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসার অঙ্গিকার নিয়ে পুলিশের কাছে আত্মসমর্পন করেছেন সাতক্ষীরা সদর উপজেলার ঝাউডাঙ্গা ইউনিয়নের গোবিন্দকাটি গ্রামের ১৫ জন চোরাচালানি। তারা দীর্ঘদিন ধরে চোরাচালানের সাথে জড়িত থেকে বাংলাদেশের পণ্য ভারতে এবং ভারতের পণ্য বাংলাদেশে পাচার করে আসছিলেন। এক বা একাধিক সিন্ডিকেট করে তারা চোরাচালানে নিজেদের জড়িয়ে রেখেছিলেন। চোরাচালানে ঘৃণা ছুড়ে দিয়ে এখন থেকে তারা ভিন্ন কর্মসংস্থান বেছে নেবেন বলে জানিয়েছেন। সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজুর রহমান জানান, তারা নিজেদের উপলব্ধি এবং পুলিশের আহবানে আজ শনিবার সদর থানা চত্বরে এসে আত্মসমর্পন করেন। তাদেরকে ফুল দিয়ে স্বাগত জানানো হয়। এ সময় তারা লিখিত অঙ্গিকার করেন। তিনি জানান তাদের বিরুদ্ধে থাকা মামলাগুলি দ্রæত নিষ্পত্তির ব্যবস্থা করা হবে। আত্মসমর্পনকারীরা হলেন, গোবিন্দকাটি গ্রামের জামাল হোসেন, মনিরুল ইসলাম মনি,মো. আলাউদ্দিন , ফারুক হোসেন, বাবলুর রহমান, আলি হোসেন , শহিদ হোসেন, কামরুজ্জামান রানা, মফিজুল ইসলাম, জিয়ারুল ইসলাম, মিজানুর টিক্কা, শাহিন , আজিজ ও আজিজার রহমান।##