লন্ডনে বাংলাদেশ উন্নয়ন মেলা-২০১৮ উদযাপিত

306
gb

জিবি নিউজ24 ডেস্ক //

লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাই কমিশন বিভিন্ন কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে ৪র্থ বাংলাদেশ উন্নয়ন মেলা-২০১৮ উদযাপন করেছে। ৭ অক্টোবর রবিবার পূর্ব লন্ডনের ইমপ্রেসন অডিটরিয়ামে জমকালো অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে উন্নয়ন মেলা উদযাপন করা হয়।

 

অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করেন যুক্তরাজ্যে নিযুক্ত হাইকমিশনার মো. নাজমুল কাওনাইন। এতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের উন্নয়ন দর্শন ও আজকের বাংলাদেশ, মহান মুক্তিযুদ্ধ, অবকাঠামো খাতে গৃহীত কার্যক্রম, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উদ্যোগ, এমডিজি অর্জনে বাংলাদেশের সাফল্য, টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা (এসডিজি), বাংলাদেশে ব্যবসা ও বিনিয়োগের সুযোগ ও সম্ভাবনা এবং পর্যটন ইত্যাদি বিষয়ে আলোচনা, পুস্তুক প্রদর্শনী ও বিতরণ, আলোকচিত্র প্রদর্শনী এবং সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

উক্ত উদযাপন অনুষ্ঠানে যুক্তরাজ্য প্রবাসী গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, মুক্তিযোদ্ধা, বাংলা প্রিন্ট ও ইলেক্টনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ, শিক্ষক, বুদ্ধিজীবী, সাহিত্যিক, শিল্পী, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব, ডাক্তার, প্রকৌশলী, ব্যবসায়ী, সমাজকর্মী, ছাত্র-ছাত্রী এবং হাই কমিশনের কর্মকর্তা ও কর্মচারীগণ উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মো. নাজমুল কাওনাইন। তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উদ্যোগ, রূপকল্প ২০২১ ও ২০৪১ সম্পর্কে প্রবাসী বাংলাদেশিদের মাঝে তুলে ধরেন। তিনি তার বক্তব্যে উল্লেখ করেন, শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে বাংলাদেশ আজ উন্নয়নের রোল মডেল। হাইকমিশনার বিদ্যুৎ, শিক্ষা, যোগাযোগ ও ডিজিটাল বাংলাদেশ নির্মাণে সরকারের সাফল্যসহ আর্থ-সামাজিক সকল খাতে উল্লেখযোগ্য দৃশ্যমান অগ্রগতির চিত্র তুলে ধরেন।

হাইকমিশনার বলেন, এ সাফল্য ও উন্নয়ন সম্ভব হয়েছে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বের কারণে। সরকারের এ গৃহীত উন্নয়ন কার্যক্রমে যুক্তরাজ্যে বসবাসরত সকল শ্রেণি পেশার প্রবাসীদেরও সক্রিয় অবদান রয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করেন।

কমিউনিটি নেতৃবৃন্দের মধ্যে যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান মাহমুদ শরীফ তার বক্তব্যে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আজ উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে। প্রবাসীদের বিভিন্ন সহযোগিতার কথা তিনি তার বক্তব্যে তুলে ধরে বলেন, বর্তমান সরকারের সার্বিক উন্নয়নের সুফল সকল সেক্টরে দৃশ্যমান হয়েছে।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশে ব্যবসা ও বিনিয়োগের সুযোগ ও সম্ভাবনা, অবকাঠামো খাতে বিপুল বিনিয়োগ, এমডিজি অর্জনে বাংলাদেশের সাফল্য এবং ডিজিটাল বাংলাদেশ নির্মাণে সরকারের পদক্ষেপসহ বাংলাদেশের উন্নয়ন অগ্রযাত্রার ওপর একটি পাওয়ারপয়েন্ট প্রেজেন্টেসন করা হয়। মেলায় বিভিন্ন ক্ষেত্রে বাংলাদেশের উন্নয়নের তথ্য চিত্রও প্রদর্শিত হয়।

অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার উন্নয়ন দর্শন, মহান মুক্তিযুদ্ধ, এমডিজি অর্জনে বাংলাদেশের সাফল্য, টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রা অর্জনে কার্যক্রম, বাংলাদেশের উন্নয়ন অভিযাত্রা, অবকাঠামো প্রকল্পসমূহ, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ উদ্যোগ, জোরপূর্বক বাস্তুচ্যুত মিয়ানমার নাগরিকদের নিয়ে সমস্যা এবং পর্যটন ইত্যাদি বিষয়ে প্রকাশিত পুস্তুকাদি প্রদর্শন ও বিতরণের নিমিত্তে ও মিশনের কন্স্যুলার সার্ভিস নিয়ে হাই কমিশন কর্তৃক দুটো স্টল স্থাপন করে সেবাসমূহ অতিথিদের নিকট তুলে ধরা হয়।

সবশেষে যুক্তরাজ্যে বসবাসরত বাংলাদেশি শিল্পীদের অংশ গ্রহণে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন