৪৫টি স্বর্ণ পদক নিয়ে কুস্তি, বক্সিং, জুডো ও কারাতে চ্যাম্পিয়ন ডিএমপি

295
gb

জিবিনিউজ24 ডেস্ক:বাংলাদেশ পুলিশ বার্ষিক কুস্তি, বক্সিং, জুডো, কারাত, শরীর গঠন, ভারোত্তোলন, তায়কোয়ান্ডো ও উশু চ্যাম্পিয়নশিপ-২০১৭ তে ১৬০টি পদকের মধ্যে ৬১টি পদক জিতে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ।

৬১টি পদকের মধ্যে ৪৫টি স্বর্ণ, ১৪টি রৌপ্য ও ০২ তাম্র পদক জিতে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে ডিএমপি।

৩৬টি পদক অর্জন করে দ্বিতীয় স্থান হয়েছে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন)। এসপিবিএন ১০টি পদক জিতে টূর্ণামেন্টে তৃতীয় হয়েছে।

মোট ১৪টি ইউনিট এই প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করে। প্রতিযোগিতাটি ৯ ডিসেম্বর শুরু হয়ে ১২ ডিসেম্বর ফাইনালের মধ্যদিয়ে শেষ হলো। টূর্ণামেন্ট আয়োজন করে বাংলাদেশ পুলিশ বার্ষিক কুস্তি, বক্সিং, জুডো, কারাত, শরীর গঠন, ভারোত্তোলন, তায়কোয়ান্ডো ও উশু পরিষদ।

আজ ১২ ডিসেম্বর বিকাল ৪টায় রাজারবাগ পুলিশ লাইন্সের শহীদ এসআই শিরু মিয়া মিলনায়তনে প্রতিযোগিতার ফাইনাল খেলাটি অনুষ্ঠিত হয়। ফাইনালে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ডিএমপি কমিশনার মোঃ আছাদুজ্জামান মিয়া বিপিএম-বার, পিপিএম। এছাড়াও ডিএমপি ও পুলিশের অন্যান্য ইউনিটের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

খেলা শেষে কমিশনার বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার ট্রফি, মেডেল ও সার্টিফিকেট প্রদান করেন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে ডিএমপি কমিশনার খেলোয়ারদের উদ্দেশ্যে বলেন, সব খেলার মধ্যে ছিল পেশাদারিত্বের স্বাক্ষর। আমরা সবাই খুব পরিছন্ন ও পরিপাটি খেলা উপভোগ করলাম। এ জন্য বিজেয়ী ও বিজেতা উভয়কেই ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা জানায়। খেলাধুলায় বাংলাদেশ পুলিশের ঐতিহ্য দীর্ঘ দিনের। দেশে ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে এই পরিষদের সাফল্য রয়েছে।

তিনি বলেন, এই খেলায় নতুন আগতদের আমরা সবসময় সমর্থন দিয়ে যাবো। তাদের খেলাধুলার উন্নয়নে আমরা পাশে আছি এবং থাকবো। ‘ডিএমপি টিম অব দ্যা টূর্ণামেন্ট’ হয়েছে তারা দলগতভাবে চারটি ইভেন্টে চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। আন্তঃ ইউনিট খেলায় শতকরা ৯৫ ভাগ খেলায় ডিএমপি বিজয়ী হয়েছে। এজন্য তাদেরকে আন্তরিক সাধুবাদ জানায়।

কমিশনার আরো বলেন, মেয়েরাও খেলাধুলায় পিছিয়ে নেই। তারা ছেলেদের সাথে সমান তালে খেলাধুলায় এগিয়ে যাচ্ছে। আমাদের সমর্থন সবসময় তোমাদের সাথে থাকবে। খেলাধুলার মাধ্যমে ডিএমপিকে আরো এগিয়ে নিতে হবে। তোমরা আরো ভালো করে প্রাকটিস করো যাতে করে জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ে সাফল্য দেখাতে পারো।

জাতীয়ভাবে পুলিশের সম্মান আরো বৃদ্ধি করতে পেশাদারিত্বের মাধ্যমে সব খেলোয়াড়দের খেলার আহবান জানান ডিএমপি কমিশনার।