মৌলভীবাজারের স্থানীয় শহীদ দিবস আজ

257
gb

জিবি নিউজ24 ডেস্ক//

আজ বিশ ডিসেম্বর মৌলভীবাজারের স্থানীয় শহীদ দিবস। এইদিনে বিজয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করতে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে জড়ো হওয়া মুক্তিযোদ্ধারা দুর্ঘটনাজনিত এক মাইন বিস্ফোরণে মারা যান।

এ ঘটনায় সেদিন মুহুর্তেই বিজয় উৎসবের সব আয়োজন পণ্ড হয়ে পড়ে। সদ্য যুদ্ধবিজয়ী বীর মুক্তিযোদ্ধাদের দেহ টুকরো টুকরো হয়ে এদিক ওদিক ছড়িয়ে ছিটিয়ে পড়ে থাকে।

পরিকল্পিতভাবে মুক্তিযোদ্ধাদের হত্যা করার উদ্দেশ্যেই কি এই মাইন বিস্ফোরন ঘটানো হয়েছিলো তা নিয়ে জনমনে এখনও অনেক প্রশ্ন রয়েছে।

বিশ ডিসেম্বর সেখানে অবস্থানরত মুক্তিযোদ্ধাদের কেউ ছিলো রান্নাবান্নায় ব্যস্ত, কেউ কেউ বিজয়ের আনন্দ ভাগাভাগি করছেন আবার কেউ কেউ আত্মীয়, পরিবার পরিজনের খোঁজ নেওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। হঠাৎ আকস্মিক বিস্ফোরণে কেঁপে ওঠে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের ক্যাম্প। চোখের নিমেষেই তুলোর মত উড়ে যায় বিদ্যালয়ের চালের টিন।

উপস্থিত মুক্তিযোদ্ধাদের দেহ টুকরো টুকরো হয়ে ছড়িয়ে পড়ে চারদিকে। শহর ছাড়িয়ে যুদ্ধকালীন আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে আশেপাশের এলাকায়। পলকেই তছনছ হয়ে যায় পুরো এলাকা। মুক্ত দেশে নিশ্চিত ঘরে ফেরার পর মুহূর্তের তারা হয়ে গেলেন স্মৃতি। এলাকাবাসী ছিন্নভিন্ন মুক্তিযোদ্ধাদের দেহ একত্রিত করে সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের দক্ষিণ-পূর্ব অংশে কেন্দ্রিয় শহীদ মিনারের পাশে সমাধিস্থ করেন।

যাদের নাম পাওয়া গেছে, তারা হলেন- শহীদ সুলেমান মিয়া, শহীদ রহিম বক্স খোকা, শহীদ ইয়ানুর আলী, শহীদ আছকর আলী, শহীদ জহির মিয়া, শহীদ ইব্রাহিম আলী, শহীদ আব্দুল আজিজ, শহীদ প্রদীপ চন্দ্র দাস, শহীদ শিশির রঞ্জন দেব, শহীদ সত্যেন্দ্র দাস, শহীদ অরুন দত্ত, শহীদ দিলীপ দেব, শহীদ সনাতন সিংহ, শহীদ নন্দলাল বাউরী, শহীদ সমীর চন্দ্র সোম, শহীদ কাজল পাল, শহীদ হিমাংশু কর, শহীদ জিতেন্দ্র চন্দ্র দেব, শহীদ আব্দুল আলী, শহীদ নুরুল ইসলাম, শহীদ মোস্তফা কামাল, শহীদ আশুতোষ দেব, শহীদ তরণী দেব, শহীদ নরেশ চন্দ্র ধর।

উল্লেখ্য, একাত্তরের আট ডিসেম্বর মৌলভীবাজার পাকি হানাদার মুক্ত হয়। ঘরছাড়া মৌলভীবাজারবাসী ও মুক্তিযোদ্ধাদের বিভিন্ন দল একে একে ফিরে আসতে থাকেন সেদিন। জেলা শহরের সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের পূর্বপ্রান্তে স্থাপন করা হয় মুক্তিযোদ্ধাদের ক্যাম্প। এখানে সমবেত হন বিভিন্ন স্থান থেকে আগত মুক্তিযোদ্ধারা। যুদ্ধের সময় বিভিন্নস্থানে পুঁতে রাখা স্থল মাইন সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ে এনে জড়ো করা হয়।