শাসক দলের নেতা-পাতি নেতারা হাজার কোটি টাকার মালিক অন্যদিকে ব্যাংক গুলো তারল্য শুন্য….আবদুল মালেক রতন

প্রেস বিজ্ঞপ্তি

জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জেএসডি সাধারন সম্পাদক জনাব আবদুল মালেক রতন বলেছেন, ক্যাসিনো, জুয়া, টেন্ডারবাজী, লুটপাট এর মাধ্যমে শাসক দলের অগণিত নেতা-পাতি নেতা হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক হয়েছে। এ অবৈধ টাকা তারা ব্যাংকে জমা করেনি। ফলে ব্যাংক গুলো আজ প্রায় তারল্যশূন্য হয়ে পড়েছে। এ নিয়ে জাতীয়-আন্তর্জাতিক ভাবে দমনের নামে চোখে ধুলা দেয়ার জন্য কিছু চুনোপুটিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রাঘব বোয়ালদের অনেকের নাম মিডিয়াতে আসলেও কাউকেই এখন পর্যন্ত গ্রেপ্তার করা হয়নি। এমপি, মন্ত্রী, বড় বড় আমলা ও বড় নেতাদের সংশ্লিষ্টতার কথা প্রকাশ পেলেও সরকার এ প্রসঙ্গে নীরব। এ অবস্থা চলতে দিলে দেশের অর্থনীতি অবিলম্বেই বিকলাঙ্গ হয়ে পড়বে। এ অবস্থা থেকে উত্তরনে আজ জাতীয় ঐক্য ও নতুন করে অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচনের কোন বিকল্প নেই। আজ বিকেল ৪ টায় জেএসডি’র ঢাকায় অবস্থানরত নেতৃবৃন্দের এক বিশেষ সভায় বক্তব্যদানকালে জনাব মালেক রতন এ সকল কথা বলেন। জবান এম এ গোফরান এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় আরও বক্তব্য রাখেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জনাব মোঃ সিরাজ মিয়া, জনাব শহীদ উদ্দিন মাহমুদ স্বপন, সাংগঠনিক সম্পাদক জনাব কামাল উদ্দিন পাটোয়ারী, এ্যাড. সৈয়দ বেলায়েত হোসেন বেলাল, মোশারফ হোসেন, আবদুর রাজ্জাক রাজা, মিজান উর রশিদ চৌধুরী, আবদুল্যাহ আল তারেক, এ্যাড. মকবুল হোসেন, ঢাকা মহানগর দক্ষিন জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জেএসডি ষ্ট জেএসডি এর সভাপতি জনাব নুরুল আবছার, সাধারণ সম্পাদক হাজী মোঃ আখতার হোসেন ভূঁইয়া, এ্যাড. নাজিম উদ্দিন শেখ প্রমুখ। সভায় আগামী কেন্দ্রীয় কাউন্সিল নিয়ে বিভিন্ন জেলায় দেয়া প্রতিনিধি সম্মেলনের অগ্রগতি নিয়ে আলোচনা হয়।

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন