পাকিস্তানে জারদারিসহ ১৭২ জনের দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা

102
gb

জিবি নিউজ24 ডেস্ক //

ভুয়া ব্যাংক অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে অর্থপাচারের মামলা তদন্তকালে সাবেক প্রেসিডেন্ট এবং পাকিস্তান পিপল’স পার্টির কো-চেয়ারপারসন আসিফ আলি জারদারিসহ সন্দেহভাজন ১৭২ জনের বিরুদ্ধে দেশত্যাগে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দেশটির কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভার একটি বৈঠক শেষে প্রেস ব্রিফিংয়ে ইমরান খান সরকারের তথ্যমন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধুরী এই তথ্য জানান বলে জানিয়েছে জিওটিভি।

তিনি বলেন, সুপ্রিম কোর্টে দাখিল করা অর্থপাচার মামলা তদন্তে গঠিত যৌথ তদন্ত দলের রিপোর্টের ভিত্তিতে এই সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।

ফাওয়াদ চৌধুরী বলেন, আমি আশা করি জারদারি এটাকে গুরুত্বের সঙ্গে নেবে। এটা এখন আর সেই পুরোনো পাকিস্তান নয়, যেখানে মানুষ আপোষ করবে। এই নিরপেক্ষ জবাবদিহিতার প্রক্রিয়া অব্যাহত থাকবে।

জারদারিকে আগামী ৩১ ডিসেম্বরের আগেই গ্রেপ্তার করা হতে পারে- তার আইনজীবী লতিফ খোসার এমন আশঙ্কার বিষয়ে জানতে চাইলে দেশটির তথ্যমন্ত্রী বলেন, ইনশাল্লাহ। এটা সম্পর্কে এর বেশি আমি কী বলতে পারি।

তিনি বলেন, আমরা যত দ্রুত সম্ভব ‘ফেডারেলি অ্যাডমিনিস্টারড ট্রাইব্যাল এরিয়াস’কে (এফএটিএ) মূলধারায় আনতে চেয়েছিলাম। দ্রুতই সাংবিধানিক অধিকার পেতে যাচ্ছে অঞ্চলটি। আগামী বছরের জুনে অঞ্চলটির প্রাদেশিক পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

সম্প্রতি করাচিতে আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতির বিষয়েও কেন্দ্রীয় মন্ত্রিসভায় আলোচনা হয়েছে উল্লেখ করে ফাওয়াদ চৌধুরী জানান, এখানকার সহিংসতায় জড়িত দক্ষিণ আফ্রিকার কিছু গ্যাং। দেশটির সরকারের সঙ্গে এই বিষয় নিয়ে আলোচনার জন্য বলা হয়েছে পররাষ্ট্র দপ্তরকে।

পাকিস্তানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আবারও কিছু গ্যাং সক্রিয় হচ্ছে। সম্প্রতি মুত্তাহিদা কায়্যুমি মুভমেন্ট নামের রাজনৈতিক দলটির প্রতিষ্ঠাতা আলতাফ হুসাইন লন্ডন থেকে ভিডিও বার্তায় তার কর্মীদেরকে মানুষ হত্যার নির্দেশ দিয়েছে।

তার বিরুদ্ধে এখনও কোনও পদক্ষেপ নেয়নি যুক্তরাজ্য সরকার। পাকিস্তান সরকার এই বিষয় নিয়ে তাদের সঙ্গে আলোচনা করবে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন