গ্রেফতার হতে যাচ্ছেন লুলা

239
gb
জিবিনিউজ ডেস্ক::

ব্রাজিলের সাবেক প্রেসিডেন্ট লুইস ইনাসিও লুলা ডা সিলভা’র কারাদণ্ড বিলম্বিত করার আবেদন বৃহস্পতিবার খারিজ করে দিয়েছে দেশটির সর্বোচ্চ আদালত। দুর্নীতির দায়ে তার ১২ বছরের সাজা হয়েছে। এই রায়ের ফলে কয়েক দিনের মধ্যেই লুলাকে গ্রেফতার করা হতে পারে।

লুলা ব্রাজিলের সবচেয়ে জনপ্রিয় নেতা। তিনি ৭ অক্টোবর নির্বাচনের প্রার্থীদের মধ্যে সবচেয়ে এগিয়ে রয়েছেন।

জেলে যাওয়া এড়াতে লুলার আবেদনের ওপর ১১ বিচারক বুধবার থেকে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ১০ ঘণ্টার বেশি সময় বিবেচনা ও তর্কবিতর্কের উপস্থাপন করেন। ছয়জন বিচারক লুলার আবেদনের বিপক্ষে আর পাঁচজন পক্ষে রায় দেন।

লুলার আবেদনের পক্ষে বিপক্ষে ৫-৫ ভোট পড়ে। এমন অবস্থায় আদালতের সভাপতি কারমেন লুসিয়া ‘টাই ব্রেকিং’ ভোটটি দেন।

তিনি তার পক্ষে যুক্তি উপস্থাপন করে বলেন, সাজাকে বিলম্বিত করা হলে তা দায়মুক্তির দিকে যেতে পারে।

২০০৩ সাল থেকে ২০১০ সাল পর্যন্ত ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন লুলা। তার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রীয় তেল কোম্পানি পেট্রোব্রাসকে কাজ পাইয়ে দেয়ার শর্তে ১ দশমিক ২ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ঘুষ গ্রহণের অভিযোগ আনা হয়েছে। এই অর্থ তিনি সমুদ্র তীরে তার একটি অ্যাপার্টমেন্টের সৌন্দর্য বাড়ানোর কাজে ব্যয় করেন।

তার আইনজীবীরা জানায়, রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবেই তার বিরুদ্ধে এই মামলা করা হয়েছে।

লুলার বামপন্থী সমর্থকরা জানিয়েছে, তার শাসন আমলে হাজার হাজার মানুষের দারিদ্র্যতা ঘোঁচাতে এই রাষ্ট্রীয় অর্থ ব্যয় করা হয়েছে।

নির্বাচনে লুলাকে ঠেকাতেই সরকারের পক্ষ থেকে এই মামলা করা হয়েছে বলে তারা অভিযোগ করছে।