দাউদ ইব্রাহিমের সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করল ব্রিটেন সরকার

233
gb

১৯৯৩ সালে মুম্বাইয়ে ধারাবাহিক বিস্ফোরণের মূলহোতা দাউদ ইব্রাহিমের সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করল ব্রিটেন সরকার। ব্রিটেনে দাউদের সমস্ত সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে। এটা নরেন্দ্র মোদির কূটনৈতিক সাফল্য হিসেবে দেখছে অনেকে।

২০১৫ সালে ব্রিটেন সফরে গিয়েছিলেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তৎকালীন ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী ডেভিড ক্যামেরুনকে দাউদের সম্পত্তি সংক্রান্ত নথি তুলে দিয়েছিলেন তিনি। কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ভি কে সিংয়ের কথায়, আমরা দাউদ নিয়ে বেশি কিছু বলতে চাই না। কিছু ঘটনা তো ঘটছেই। বিড়ালকে ঝুলি থেকে বেরোতে দেব না।

বার্মিংহাম মেইলের প্রতিবেদনের দাবি, ওয়ারউইকশায়ার দাউদের একটি হোটেল রয়েছে। এছাড়াও মিডল্যান্ডে বেশ কয়েকটি আবাসনের মালিক কুখ্যাত ডন। ব্রিটেন সরকারের কোষাধ্যক্ষ দপ্তর একটি তালিকা তৈরি করেছে।

সেই তালিকায় একমাত্র ভারতীয় হিসেবে নাম রয়েছে দাউদ ইব্রাহিমের। তবে পাকিস্তানের তিনটি ঠিকানা দেওয়া আছে। ব্রিটেনের সরকারি খাতায় দাউদের ঠিকানা- হাউস নং ৩৭, ৩০ নম্বর স্ট্রিট- ডিফেন্স হাউসিং অথরিটি, করাচি; নুরাবাদ, করাচি এবং হোয়াইট হাউস, সৌদি মসজিদ, ক্লিফটন, করাচি।

১৯৯৩ সালে মুম্বাইয়ে ধারাবাহিক বিস্ফোরণের মূল অভি‌যুক্ত দাউদ ইব্রাহিম। ওই ঘটনায় ২৬০ জনের মৃত্যু হয়েছিল। আহত হয়েছিলেন ৭০০ জনেরও বেশি। তারপর থেকেই দেশছাড়া দাউদ। বিদেশে আশ্রয় নিয়েছে সে।