নতুন ইয়ূথ সার্ভিস চালু করেছে টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল

350
gb

টাওয়ার হ্যামলেটস’ বারার উন্নত সুবিধা সম্বলিত ১৮টি ইয়ূথ সেন্টার বা হাবের মাধ্যমে হাজার হাজার শিশু কিশোর ও তরুণ বয়সীদের জন্য নতুন ইয়ূথ সার্ভিসের আওতায় বিভিন্ন ধরনের ফ্রি কর্মসূচি মঙ্গলবার থেকে চালু হয়েছে। স্টেপনীর হেইলিবারি ইয়ূথ সেন্টারে ১৩ ফেব্রুয়ারী মঙ্গলবার সন্ধ্যায় আনুষ্ঠানিকভাবে নতুন সার্ভিসের উদ্বোধন করেন নির্বাহী মেয়র জন বিগস। অনুষ্ঠানে টাওয়ার হ্যামলেটসের যে সকল কিশোর তরুণ বিভিন্ন ক্ষেত্রে সাফল্য অর্জন করেছে, তাদেরকে এওয়ার্ড প্রদান করা হয়।

Youth Services Relaunch at Haileybury Youth Centre – 13Feb18

উল্লেখ্য, ২০১৪ ও ২০১৫ সালে সরকার কর্তৃক নিয়োগকৃত কমিশনাররা ইয়ূথ সার্ভিসে গুরুতর ব্যর্থতার বিভিন্ন দিক চি?িত করার প্রেক্ষিতে এই সার্ভিসকে পুরোমাত্রায় রূপান্তরিত করা হয়েছে। কমিশনাররা যে ক্ষেত্রগুলোতে ব্যর্থতা খুঁজে পেয়েছিলেন, তার মধ্যে ছিলো কেনাকাটায় নিয়ম অনুসরণে, পরিচালনায় ও স্বচ্চছতা নিশ্চিত করণে ব্যর্থতা, এবং কন্ট্রাক্ট লাভকারী সংগঠনের সাথে স্বার্থ সংশ্লিষ্টতা থাকার ঘোষনা প্রদানে স্টাফদের ব্যর্থতা।

পরবর্তীকালে টাওয়ার হ্যামলেটস’ কাউন্সিল অভিযোগগুলো খতিয়ে দেখার জন্য দুই জন তদন্তকারী নিয়োগ দেয়, যার ফলশ্রুতিতে ৮ জন স্টাফকে চাকুরি থেকে বহিস্কার ও একজনের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়। ৫ জন স্টাফ পদত্যাগ করেন। বর্তমানে পুলিশী তদন্ত চলমান রয়েছে। বিগত বছরগুলোতে কাউন্সিল নতুন ভিশন এবং উন্নত মানের পরিচালনা, কেনাকাটা ও পারফরমেন্স পর্যবেক্ষণ নিশ্চিত করার প্রক্রিয়া কার্যকর করে গোটা ইয়ূথ সার্ভিসকে এক অর্থে পূণচ্ঞনির্মান করা হয়েছে। সার্ভিসের মান প্রত্যাশিত মাত্রায় উন্নীত করতে নতুন লক্ষ্যমাত্রা ও ফলাফল, স্টাফদের জন্য নতুন ট্রেনিং ইত্যাদির ব্যবস্থা করা হয়েছে।
নতুন ভেল্যূ বা মান নির্ধারণ, অগ্রাধিকারসমূহ চিহিৃতকরণ, ইয়ূথ হাবগুলোর জন্য নতুন ব্র্যান্ড এবং ইয়ূথ ওয়ার্কারদের জন্য নতুন ইউনিফর্ম ডিজাইনে কিশোর তরুণ বয়সীরা সাহায্য করে।
অনুষ্ঠানে বক্তৃতাকালে মেয়র জন বিগস বলেন, আমাদের তরুণ সম্প্রদায় অসাধারণ গুণের অধিকারী এবং তাদের ভবিষ্যতের ওপর বিনিয়োগ করা হলে টাওয়ার হ্যামলেটসই পরিণত হবে উন্নত জনপদে।
তিনি বলেন, যখন আমি মেয়র হই, তখন আমাদের ইয়ূথ সার্ভিসে গুরুতর সমস্যা ছিলো। স্বচ্চছতার ঘাটতি যেমন ছিলো, তেমনি তহবিলের যথেচ্চছ ব্যবহারের বিষয়টিও ওঠে আসে সরকার নিয়োজিত কমিশনারদের অনুসন্ধানে। এর পর থেকে আমাদের ইয়ূথ ওয়ার্ক ও বারার তরুণ সম্প্রদায়ের চম্কার মেলবন্ধনে নতুন এই সার্ভিসকে গড়ে তোলা হয়েছে। মেয়র বলেন, সারা দেশের মধ্যে সবার্ধিক সংখ্যক তরুণ জনগোষ্টির বাস হচ্চেছ আমাদের এই বারায়। তাই আমাদের কিশোর তরুণরা যাতে তাদের ভবিষ্যতকে আরো উন্নত করতে এবং বারার সাফল্যে ভূমিকা রাখতে সক্ষম হয়, সেজন্য তাদেরকে প্রয়োজনীয় সুযোগ সুবিধা প্রদান করা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ইয়াং মেয়র অব টাওয়ার হ্যামলেটস, ফাহিমুল ইসলাম বলেন, যখন আমি ইয়াং মেয়র হিসেবে নির্বাচিত হই, তখন বারার প্রতিটি তরুণের উচ্চচাভিলাষি হওয়ার মতো বিশ্বাস ও হয়ে ওঠার অনুকূল পরিবেশ তৈরীতে সর্বাত“ক চেষ্ঠা চালানোর অঙ্গিকার করেছিলাম। সম্পূর্ণ নতুন ধরনের ইয়ূথ সার্ভিস গড়ে তুলতে কাউন্সিলের সাথে কাজ করার অভিজ্ঞতা অসাধারণ। নুতন সার্ভিস বারার কিশোর তরুণ বয়সীদেরকে ভবিষ্যতের সমৃদ্ধি অর্জনে সাহায্য করবে।
টাওয়ার হ্যামলেটসের ইয়ূথ সার্ভিসকে নতুনভাবে গড়ে তুলতে কাউন্সিলের সাথে ঘনিষ্টভাবে কাজ করেন পার্টনারশীপ ফর ইয়াং লন্ডন এর ডিরেক্টর শ্যারন লং। তিনি বলেন, ইয়াং পিপল বা তরুণ জনগোষ্টির ওপর বিনিয়োগ ও সুরক্ষায় টাওয়ার হ্যামলেটস কাউন্সিল যে পদক্ষেপগুলো নিয়েছে, সেগুলোকে আমরা স্বাগত জানাই। তাদের এই কার্যক্রমকে আরো এগিয়ে নিতে এই কর্মসূচির অংশ হিসেবে কাজ করে যেতে আমরা আগ্রহী।
কেবিনেট মেম্বার ফর কালচার এন্ড ইয়ূথ, কাউন্সিলর আব্দুল মুকিত এমবিই বলেন, তরুণরা তাদের জন্য দেয়া সার্ভিস থেকে কি ধরনের সেবা পেতে চায় সেসম্পর্কে তাদের বক্তব্য ও অভিমত আমরা অত্যন্ত গুরুত্বের সাথে শুনেছি। তারা চেয়েছে উন্নত সুবিধাদি, এবং তা ব্যবহারে তাদের উপযোগী খোলা থাকার সময়, এবং শিক্ষা ও কর্মসংস্থানসহ যে ইস্যূগুলো তাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ সেসম্পর্কে পর্যাপ্ত তথ্য ও পরামর্শের ব্যবস্থা। তিনি বলেন, এ পর্যন্ত আমরা যে সাফল্যগুলো অর্জন করেছি, তাতে আমরা আনন্দিত এবং আমাদের ইয়ূথ সার্ভিসগুলো আগামী দিনগুলোতে আরো সম্প্রসারিত ও উন্নত হবে বলে আমি আশাবাদি।