চাঁপাইনবাবগঞ্জ সীমান্তে বিএসএফ’র গুলিতে নিহত বাংলাদেশীর মরদেহ হস্তান্তর

91

জাকির হোসেন পিংকু,চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি:
চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার বিনোদপুর ইউনিয়নের কিরনগঞ্জ সীমান্তে বিএসএফ’র গুলিতে নিহত বাংলাদেশী তরুন দুলাল হোসেনের (১৮) মরদেহ হস্তান্তর করেছে ভারতীয় পুলিশ। গত সোমবার(৮’জুলাই) রাত ১০টার দিকে কিরনগঞ্জ সীমান্তের কালিগঞ্জ মোবারকটোলা এলাকা দিয়ে (বিপরীতে ভারতের সবদলপুর) মরদেহ গ্রহণ করেন শিবগঞ্জ থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই) টিআই ফারুক। এসময় দুলালের পিতাসহ পরিবারের সদস্যরা,বিজিবি-বিএসএফ প্রতিনিধি,সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান এনামুল হক,ওয়ার্ড সদস্য কফিলউদ্দিন উপস্থিত ছিলেন। নিহত দুলাল কিরনগঞ্জ ঝড়–টোলা গ্রামের শফিকুল ইসলামের ছেলে।
শিবগঞ্জ পুলিশ ময়নাতদন্তকৃত মরদেহ সনাক্তের পর রাতেই পরিবারের নিকট হস্তান্তর করে। পরে গভীর রাতে দুলালের মরদেহ দাফন করা হয়। শিবগঞ্জ পুলিশ ও ইউপি চেয়ারম্যান জানান, দুলালের কানে গুলিবিদ্ধ হবার চিহ্ন ও দেহে ধারাল অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন দেখা গেছে। মরদেহ হস্তান্তরের ব্যাপারে শিবগঞ্জ থানায় জিডি হয়েছে।
স্থানীয়রা জানিয়েছেন,গত সোমবার (৮’জুলাই) ভোররাতে ৭/৮জন সঙ্গীসহ ভারতে অনুপ্রবেশের সময় ১৭৮নং সীমান্ত মেইন পিলারের নিকট ২৪’বিএসএফ ব্যাটালিয়নের সুখদেবপুর ক্যাম্প সদস্যদের গুলিতে নিহত হন দুলাল এসময় তার অন্য সহযোগিরা পালিয়ে আসেন। সোমবার সকালে দুলালের মরদেহ বিএসএফ সীমান্ত থেকে ভারতের অভ্যন্তরে নিয়ে যায়। বিজিবি ও ইউপি চেয়ারম্যান জানান, গত সোমবার ভোররাত পৌনে ৩টার দিকে সীমান্তে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে। পরে সোমবার ভোরে আলো ফোটার পর দুলালের মরদেহ সীমান্তের ২০/২৫ গজ ভারতের অভ্যন্তরে পড়ে থাকতে দেখা যায়।
চাঁপাইনবাবগঞ্জে ৫৯’বিজিবি ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে.কর্ণেল মাহমুদুল হাসান মঙ্গলবার(৯’জুলাই) বিকেলে বিএসএফ’র গুলিতে দুলালের নিহত হওয়া ও পরে রাতে মরদেহ হস্তান্তরের বিষযটি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, এ ঘটনা নিয়ে ওই সীমান্তে সোমবার দুপুরে ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক পর্যায়ে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে বিএসএফ সীমান্তে তাদের গুলিতে একজন নিহত হবার বিষয়টি স্বীকার করে।
নিহত দুলাল ও তার সহযোগিরা কি কারণে ভারতে অনুপ্রবেশের চেষ্টা করে তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তবে স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, এই সীমান্ত দিয়ে ভারতীয় গবাদিপশু আসে না। নিহত দুলাল চোরাকারবারী চক্রের সদস্য হতে পারে। ##