নবীগঞ্জে নির্বাচনী দৌড়ে হেরে গেলেন ড. রেজা!

নবীগঞ্জ-বাহুবল আসনের ২ মন্ত্রীর পুত্রের লড়াইয়ে আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী মিলাদ গাজীর নিরষ্কুশ বিজয়,নেতাকর্মীদের মাঝে আনন্দের বন্যা!

208
gb

উত্তম কুমার পাল হিমেল,নবীগঞ্জ(হবিগঞ্জ)প্রতিনিধি||

হবিগঞ্জ ১ নবীগঞ্জ বাহুবল আসনে বিক্ষিপ্ত ছোটখাট কিছু ঘটনা ছাড়া প্রায় সুন্দর ও সুষ্ট পরিবেশে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্টিত হয়েছে। গতকাল রবিবার দিনব্যাপী এ আসনের ১৭৬ টি কেন্দ্রে প্রায় উৎসমুখর পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্টিত হয়। এ আসনের মোট ভোটার ছিলেন ৩ লক্ষ ৬৪ হাজার ৯ শত ৩৯ জন । এর মধ্যে ১ লক্ষ ৮০ হাজার ৮ শত ১৬ জন পুরুষ এবং ১ লক্ষ ৮৪ হাজার ১ শত ২৩ জন মহিলা। ভোটারদের প্রত্যক্ষ ভোটে এ আসনে বেসরকারীভাবে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন সাবেক এমপি প্রয়াত মন্ত্রী ফরিদ গাজীর পুত্র আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী শাহনেওয়াজ মিলাদ গাজী প্রাপ্ত ভোট ১ লক্ষ ৫৮ হাজার ১ শত ৮৮ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী প্রার্থী প্রয়াত অর্থমন্ত্রী শাহ এ এম এস কিবরিয়ার পুত্র জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত প্রার্থী ড.রেজা কিবরিয়া প্রাপ্ত ভোট ৮৫ হাজার ১ শত ৯৮ ভোট । ৭২ হাজার ৯শত ৯০ ভোটের বিশাল এ ব্যবধানে আওয়ামীলীগ দলীয় প্রার্থী বিজয়ী হলে নেতাকর্মীদের মাঝে আনন্দ উল্লাস বিরাজ করছে। মর্যাদাপূর্ন হবিগঞ্জ ১ নবীগঞ্জ-বাহুবল এ আসনে ২ মন্ত্রীর পুত্রর লড়াইকে অনেকেই মর্যাদা বনাম অস্তিত্বের লড়াই হিসাবে দেখছিলেন। কারন এ দিকে আওয়ামীলীগ মনোনীত নৌকার প্রার্থী ছিলেন শাহনেওয়াজ মিলাদ গাজী ছিলেন প্রয়াত সাবে শিল্প প্রতিমন্ত্রী ফরিদ গাজীর পুত্র । আর অপর প্রার্থী আওয়ামীলীগ সরকারের প্রয়াত অর্থমন্ত্রী আওয়ামীলীগ নেতা শাহ এ এম এস কিবরিয়ার পুত্র জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট মনোনীত ধানের শীষের প্রার্থী ছিলেন ড. রেজা কিবরিয়া । আওয়ামীলীগ নেতা প্রায়াত অর্থমন্ত্রীর পুত্র ধানের শীষ নিয়ে নর্বিাচন করায় নবীগঞ্জ-বাহুবল আসনে সাধারন মানুসের মাঝে দেখা দিয়েছিল নানান প্রতিক্রিয়া। তাই এ আসনটিকে সিলেট বিভাগের ১৯ আসনের মধ্যে অন্যতম একটি মর্যাদাপূর্ন আসন বলে গনৗ করেছিলেণ রাজিৈনতকি বিশ্লেষকরা। অপর দিকে নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগ এনে নিজ বাড়ী উপজেলার দেবপাড়া ইউনিয়নের জালালশাপ গ্রামে সংবাদ সম্মেলন করেছেন ড. রেজা কিবরিয়া। এ আসনের অপর প্রার্থী জাতীয় পার্টির আতিকুর রহমান আতিক পেয়েছেন ৩ হাজার ৮ শত ৩৮ ভোট,কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের এডবোকেট নুরুল হক(গামছা) পেয়েছেন ১ শত ২৭ ভোটে,জাতীয় সমাজতান্ত্রি ফ্রন্ট বাসদ মনোনীত প্রার্থী চৌধুরী ফয়সল শোয়েব(মই) পেয়েছেন ২শত ৩১ ভোট,ইসলামঅ ঐখ্যফ্রন্ট্রের আবু হানিফা(হাতপাখা) পেয়েছেন ৫ শত ৮৯ ভোট, মোমবাতি পেয়েছেন ১ শত ৪৪ ভোট।