প্যালেসের মোকাবেলা করবে দারুণ ফর্মে থাকা ইউনাইটেড

242
gb

ক্রিস্টাল প্যালেসের বিপক্ষে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে প্রিমিয়ার লীগের হোম ম্যাচে অংশ নিতে পারেন ফিটনেস ফিরে পাওয়া এ্যান্থনি মার্টিয়াল। আগামীকাল শনিবার অনুষ্ঠিত হবে ঘরোয়া লীগের ম্যাচটি।

সপ্তাহের মধ্যভাগে ছোট্ট ইনজুরির কবলে পড়েছিলেন মার্টিয়াল।

চ্যাম্পিয়ন্স লীগের গ্রুপ পর্বের এ্যাওয়ে ম্যাচে সিএসকেএ মস্কো’র বিপক্ষে অসাধারণ নৈপুণ্য প্রদর্শন করেছেন মার্টিয়াল। ৪-১ গোলে জয় পাওয়া ওই ম্যাচে তিনি পেনাল্টি থেকে একটি গোল করেছেন এবং সতীর্থ রোমেলু লুকাকুকে দুটি গোলের সুযোগ সৃষ্টি করে দিয়েছেন।

ইনজুরিতে পড়ায় ফরাসি ওই ফরোয়ার্ড ম্যাচটি পুরো খেলতে পারেননি। ৭২তম মিনিটে মার্কাস রাসফোর্ডকে বদলী বানিয়ে মাঠের বাইরে চলে যেতে হয় তাকে। তবে ক্লাব কর্তৃপক্ষ বলেছে ঝুঁকি এড়ানোর জন্যই ওই পরিবর্তনটি আনা হয়েছিল।

ইউনাইটেডের কোচ হোসে মরিনহো বলেন, ‘আমি পুরো ম্যাচের জন্যই তাকে মাঠে নামিয়েছিলাম। কিন্তু তিনি ৯০ মিনিট খেলতে পারেননি। ’

প্যালেসের বিপক্ষে মার্টিয়াল মাঠে নামবেন বলে আশা করছেন, ইউনাইটেড কোচ।

যদিও গোটা দলটিই এখন ইনজুরির কবলে। মিডফিল্ডার পল পগবা, ম্যারুনে ফেলাইনি ও মাইকেল ক্যারিক ইনজুরির কারণেই রাশিয়া সফরে যেতে পারেননি। ওই তালিকায় আরো ছিলেন ডিফেন্ডার ফিল জোন্স ও এন্টনিও ভ্যালেন্সিয়া।

গত সেপ্টেম্বরে বাসেলের বিপক্ষে চ্যাম্পিয়ন্স লীগের ম্যাচের শুরুতেই ইনজুরিতে পড়ার পর থেকে এখনো সাইডলাইনে রয়েছেন ফরাসি মিডফিল্ডার পগবা। তিনি হ্যামস্ট্রিং ইনজুরিতে আক্রান্ত। গত শনিবার সাউদাম্পটনের বিপক্ষে ম্যাচে পায়ের গোড়ালরির সমস্যায় আক্রান্ত হন ফেলাইনি। ম্যাচে ১-০ গোলে জয় পায় মরিনহোর শিষ্যরা।

ক্যারিক, জোন্স ও ভ্যালেন্সিয়ার ইনজুরি এখনো শনাক্ত হয়নি। তারপরও প্যালেসের বিপক্ষে ম্যাচে তাদের পাওয়া নিয়ে অনিশ্চয়তায় আছেন মরিনহো। তিনি বলেন, ‘আমার মনে হয় ক্যারিকের কোন সুযোগ নেই। জোন্সকে নিয়েও সন্দেহ আছে। ফেলাইনিকে নিয়ে কিছুটা আশাবাদী। তবে পুরোপুরি শংকামুক্ত নই। ’

এত সব সমস্যার মধ্যেও ইউনাইটেড তাদের সর্বশেষ ৫ ম্যাচের সবকটিতেই জয়লাভ করেছে। আছে প্রিমিয়ার লীগের পয়েন্ট টেবিলের ২য় অবস্থানে। টেবিলের তলানীর দল প্যালেসের মোকাবেলা করার আগমুহুর্ত পর্যন্ত দলটি ১৬ গোল করেছে।