পরিচালক অরিন্দমের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ রূপাঞ্জনার

33
gb

জিবিনিউজ 24 ডেস্ক//

‘হ্যাশট্যাগ মিটু’ ঝড়ে নাকাল হলিউড, বলিউডের অনেক গুণী সিনেমার পরিচালক, নায়ক ও কলাকুশলীরা। সেই ঝড়টি কলকাতার বিনোদন জগতেও প্রবেশ করেছে। এবার গুণী পরিচালক অরিন্দম শীলের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানি বা অশালীন আচরণের বিস্ফোরক অভিযোগ তুললেন অভিনেত্রী রূপাঞ্জনা মৈত্র।

সম্প্রতি আনন্দবাজার পত্রিকার কাছে রূপাঞ্জনা তার ওই অভিজ্ঞতা শেয়ার করেন। তিনি অভিযোগ তুলেছেন, অরিন্দম শীল তার ‘ভূমিকন্যা’ ধারাবাহিকের চিত্রনাট্য পড়ে শোনানোর জন্য একদিন তাকে ডেকে পাঠান। কথামতো নির্ধারিত সময়ে পরিচালকের ইস্টার্ন বাইপাসের ধারের অফিসে পৌঁছেও যান রূপাঞ্জনা। সেখানেই তাকে আলিঙ্গনের ইঙ্গিত করেন অরিন্দম।এদিকে অফিস ফাঁকা দেখে অস্বস্তিতে পড়েন তিনি।

রূপাঞ্জনার অভিযোগ, প্রডাকশনের ছেলেকে চা দিতে বলে সেখান থেকে সরে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন পরিচালক। কথোপকথনের এক পর্যায়ে পিঠে-মাথায় হাত বুলিয়ে দেওয়ারও অভিযোগ তুলেছেন রূপাঞ্জনা।

অভিনেত্রী রূপাঞ্জনা আরও বলেন, ওই ঘটনার মিনিট পাঁচেকের মধ্যে অরিন্দম শীলের স্ত্রী সেখানে এসে হাজির হন। তিনিও রূপাঞ্জনাকে দেখে হতভম্ব হয়ে পড়েন।কিন্তু এতদিন পর এসব অভিযোগ কেন? এমন প্রশ্নের জবাবে রূপাঞ্জনা বলেন, যে চ্যানেলে ‘ভূমিকন্যা’ সম্প্রচারিত হতো, সেই চ্যানেলের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ থাকার কারণে তিনি মুখ বন্ধ করেছিলেন।

রূপাঞ্জনার এসব অভিযোগ মিথ্যা বলে উড়িয়ে দিয়েছেন পরিচালক অরিন্দম। তার ভাষ্য, এটি ‘পলিটিক্যাল স্ট্যান্ট’। রূপাঞ্জনা তার দীর্ঘদিনের বন্ধু হয়েও মিথ্যা বলছেন।

 

অন্যদিকে ফেইসবুকে রূপাঞ্জনা একটি পোস্টে লিখেছেন, এটা কোনো খবর নয়, এটি অভিনেত্রী জীবনের আক্ষেপ যে এমন একটি ঘটনা আমার সঙ্গে ঘটেছিল। খারাপ লাগছে এটা ভেবে বহু কষ্টে নিজের একটা জায়গা তৈরি করেছি এই ইন্ডাস্ট্রিতে, সেই জায়গাটাই কিছু মানুষ ক্ষুদ্র করে দিতে চেয়েছিল। চুপ করে ছিলাম, নিজেকে মানসিকভাবে প্রস্তুত করছিলাম। তারপর যেদিন পারলাম, সেদিন সবার সামনে তুলে ধরলাম মনের কষ্টের এক টুকরোকে। মনে হয়েছিল, এটা যদি না পারি তাহলে ভবিষ্যৎ আমাকে প্রশ্ন করবে কেন একটা সুন্দর সমাজ তৈরি করতে পারিনি আমরা? হাজার স্বপ্ন নিয়ে যে মেয়েরা অভিনেত্রী হতে চায়, তাদের কেন আমি শেখাব না কোনটা ভাল আর মন্দ! শ্বাপদস‌ংকুল সমাজের কাছ থেকে ওদের সাবধান করে দেয়াই তো আমার কাজ।

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More