যুক্তরাষ্ট্রের ওপর পাল্টা নিষেধাজ্ঞা আরোপ করল চীন

108
gb

মো:নাসির, জিবি নিউজ ২৪

হংকংয়ে মার্কিন সামরিক উপস্থিতির ওপর কড়াকড়ির পাশাপাশি কয়েকটি মার্কিন এনজিওর ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে চীন।

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এক ঘোষণায় বলেছে, এখন থেকে যুক্তরাষ্ট্রের কোনো সামরিক জাহাজ এবং বিমান হংকংয়ে প্রবেশ করতে পারবে না।

নিষেধাজ্ঞায় হংকংয়ের বিক্ষোভকারীদের উগ্রপন্থি, সহিংস ও অপরাধমূলক কর্মকাণ্ডে উসকানি দেয়ার অভিযোগ এনে যুক্তরাষ্ট্রের বেশকিছু নন-গভর্নমেন্ট অর্গানাইজেশনের (এনজিও) ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে চীন।

চীনের রাজধানী বেইজিংয়ে এক নিয়মিত সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রণালয়টির নারী মুখপাত্র হুয়া চুনিং বলেন, আমরা যুক্তরাষ্ট্রকে ভুল শুধরে নেয়ার এবং আমাদের অভ্যন্তরীণ বিষয়গুলোতে হস্তক্ষেপ বন্ধ করার আহ্বান জানাচ্ছি। হংকংয়ের স্থিতিশীলতা ও উন্নয়ন এবং চীনের সার্বভৌমত্ব টিকিয়ে রাখতে প্রয়োজনে আরও পদক্ষেপ নেবে চীন।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প গত সপ্তাহে হংকং হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড ডেমোক্র্যাসি অ্যাক্ট নামের আইনটিতে সই করার পর কঠোর পালটা পদক্ষেপ নেয়ার অঙ্গীকার করে চীন। আইনটিতে হংকংয়ের বিক্ষোভকারীদেরকে সমর্থন এবং চীনেও ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের হুমকি দেয়া হয়েছে।

প্রায় ছয় মাস ধরে চলমান হংকং বিক্ষোভ। শুরু থেকেই এই বিক্ষোভের সমর্থন দিয়ে আসছে যুক্তরাষ্ট্র ও পশ্চিমা দেশগুলো। গত সপ্তাহে (২৮ নভেম্বর) বিক্ষোভের সমর্থনে করা একটি বিলে স্বাক্ষর করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

এরপরই এর বিরুদ্ধে কঠোর প্রতিক্রিয়া জানায় চীন। পাল্টা জবাবে আইনের খসড়া প্রণয়নকারীদেরকে চীনা মূল ভূখণ্ডসহ হংকং এবং ম্যাকাউয়ে প্রবেশ নিষিদ্ধের তালিকায় রাখার ইঙ্গিতও তখনই দিয়েছিল চীন। সে মতোই এবার যুক্তরাষ্ট্রের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নিল দেশটি।

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র হুয়া চুনিয়াং বলেছেন, হংকংয়ের বিক্ষোভকারীদেরকে সমর্থন দেয়ার জন্য ওই সংগঠনগুলোকে মূল্য দিতে হবে। হংকংয়ের বিক্ষোভে তাদেরও কিছু দায় আছে। সেকারণেই তাদের ওপর এ নিষেধাজ্ঞা।