ফলোআপ: আম বয়ানের মধ্যে দিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জে শুরু হয়েছে ৩ দিনের জেলা এস্তেমা

175

জাকির হোসেন পিংকু,চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি: চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ সদরের মারকাজ মসজিদ এলাকায় আম বাগানে বৃহস্পতিবার(১৩’জুন) ফজর নামাজের পর আম বয়ানের মধ্য দিয়ে ৩ দিনব্যাপী (১৩’জুন-১৫’জুন) জেলা ইজতেমা শুরু হয়েছে। ফজর নামাজের পর আম বয়ান করেন ঢাকা কাকরাইল মসজিদের মুরুব্বী মুফতি শফিউল্লাহ। এছাড়া দিনব্যাপী ডা.সাইফুল ইসলাম, মাওলানা শফিক ও মাওলানা আব্দুল্লাহ মুনসুর বয়ান করেন। শিবগঞ্জ উপজেলায় এই প্রথমবার জেলা ইজতেমার আয়োজন করা হয়েছে। ইজতেমাকে কেন্দ্র করে স্থানীয় ধর্মপ্রাণ মুসল্লীদের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার সৃষ্টি হয়েছে। তাবলীগ জামায়াত মুরুব্বী আকবর হোসেন ও আকবর আলী জানান, দেশের বিভিন্ন এলাকা ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের বিভিন্ন উপজেলা থেকে প্রায় ৫ হাজার মুসল্লী প্রথম দিন ইজতেমা ময়দানে উপস্থিত হলেও ক্রমাগত মুসল্লী সংখ্যা বাড়ছে। অর্ধলক্ষ মুসল্লী যেন ইজতেমায় শরীক হতে পারে তার সবরকম ব্যবস্থা করা হয়েছে। এছাড়া আগামী শনিবার (১৫’জুন) আখেরি মোনাজাতে যেন লক্ষাধিক মুসল্লী শরিক হতে পারেন তার সবরকম ব্যবস্থা রেখেছে আয়োজকরা। থাকা,খাওয়ার নিজস্ব ব্যবস্থায় সহায়তা ছাড়াও ইজতেমায় অংশগ্রহনকারীদের জন্য রয়েছে বিদ্যূৎ,সুপেয় পানি ও ল্যাট্রিনের সুব্যবস্থা। অ্যাম্বুলেন্স, চিকিৎসক ও ফায়ার সার্ভিসের ইউনিট সার্বক্ষণিক কাজ করছে । ইজতেমা সফল করতে ইতিমধ্যে ভারত ও ইন্দোনেশিয়া থেকে একটি করে জামায়াত এসেছে। এদিকে ইজতেমা উপলক্ষে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহবুব আলম। চাঁপাইনবাবগঞ্জে তাবলিগ জামায়াতের দুটি গ্রুপ সক্রিয় থাকায় বিশেষ নজরদারী করা হচ্ছে। ইজতেমা মাঠে ঢোকা ও বের হবার জন্য পৃথক কয়েকটি গেট তৈরি করা হয়েছে। ইজতেমা ময়দানে মোতায়েন রয়েছে পুলিশ,তাবলিগ জামায়াতের নিজস্ব স্বেচ্ছাসেবী ও সাদা পোষাকে বিভিন্ন আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্যদের। ইজতেমা ময়দানে পুলিশের একটি কন্টোল রুম চালু করা হয়েছে। আগামী শনিবার দুপুরের দিকে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে জেলা ইজতেমা শেষ হবে।