আপডেট : চাঁপাইনবাবগঞ্জ ভোলাহাটে পিতার কবরের পাশে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন নাট্যকার মমতাজউদদীন আহমদ

67
gb

জাকির হোসেন পিংকু,চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি:
শেষ ইচ্ছা অনুয়ায়ী চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাট উপজেলার বজরাটেক কানারহাট গ্রামে পিতা মরহুম কলিমউদদীন আহমদের কবরের পাশে সোমবার (৩’জুন) রাতে চিরনিদ্রায় শায়িত হয়েছেন প্রখ্যাত নাট্যকার,নির্দেশক,অভিনেতা,শিক্ষাবিদ ও ভাষাসৈনিক অধ্যাপক মমতাজউদদীন আহমদ। এর আগে গত রোববার(২’জুন) বিকেলে ঢাকার এপোলো হাসপাতালে ৮৪ বছর বয়সে বার্ধক্যজনিত  রোগে মারা যান তিনি। সোমবার রাত আটটার দিকে মমতাজউদদীন আহমদ এর মরদেহ ঢাকা থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাটে তাঁর গ্রৃামের বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। রাত সাড়ে দশটায় স্থানীয় বজরাটেক সবজা পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে শেষ নামাজে  জানাজার পর মরদেহ  মরহুমের পৈত্রিক বাড়ি সংলগ্ন পারিবারিক গোরস্থানে দাফন সম্পন্ন হয়।
জানাযায় অংশ নেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ-১ আসনের সাংসদ ডা.সামিল উদ্দিন আহমেদ শিমুল,চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ আসনের সাংসদ আমিনুল ইসলাম,সাবেক সাংসদ গোলাম মোস্তফা বিশ্বাস ও জিয়াউর রহমান,উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান রাব্বুল হোসেন সহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশা’র হাজারো মানুষ।
এদিকে মরদেহ গ্রামের বাড়িতে আনার পরপরই এলাকায় আরেকদফা শোকের ছায়া পড়ে। বিভিন্ন ক্ষেত্রে বহু পুরস্কারপ্রাপ্ত দেশ বরেন্য চাঁপাইনবাবগঞ্জের কৃতি সন্তান মমতাজউদ্দিনকে শেষ দেখা দেখতে বাড়িতে ভীড় করে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ ও আত্মীয়রা। এর মধ্যে ছিলেন চাঁপাইনবাবগঞ্জ-৩ সদর আসনের সাংসদ ও বিএনপি কেন্দ্রীয় যুগ্মমহাসচিব হারুনুর রশীদ।

 


ভোলাহাটে অবস্থানরত অধ্যাপক মমতাজউদদীন আহমদ এর বড়ভাই মৃত.শরিফউদ্দীন আহমদের ছেলে  আশিক আহমেদ বাপ্পী জানান, সড়কপথে মরদেহের সাথে ঢাকা থেকে ভোলাহাট আসেন মমতাজউদদীন আহমদ এর বড় ছেলে তিতাস মাহমুদ ও অপর ভাতিজা সেলিম আহমেদ। বিকেলে ঢাকা থেকে মরহমের স্ত্রী কামরুন্নেসা মমতাজ ও বড় মেয়ে পিয়াসা আহমদ বিমানযোগে রাজশাহী হয়ে ভোলাহাট এসে পৌঁছান। চার ছেলে-মেয়ের মধ্যে মরহুমের অপর এক ছেলে ও এক মেয়ে বিদেশে থাকায় পিতার শেষ বিদায়ে উপস্থিত হতে পারেননি।
তার মৃত্যুতে মহামান্য রাষ্ট্রপতি আব্দুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সহ বিভিন্ন সংগঠন ও দেশের শীর্ষ স্থানীয় সাংস্কৃতিক ব্যক্তিবর্গ শোক প্রকাশ করেছেন।   ###

gb
মন্তব্য
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More