রোহিঙ্গা মুসলিমদের নির্যাতনের প্রতিবাদে উত্তাল পুরান ঢাকা

286
gb

সাইফুদ্দিন আহমেদ মোক্তার ঢাকা ||

মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলিমদের নির্বিচারে হত্যা ও নির্যাতনের প্রতিবাদে উত্তাল পুরান ঢাকার লালবাগ। শুক্রবার জুমার নামাজ শেষে সেচ্ছাসেবী সংগঠন বৈশাখী তরুণ সংঘের উদ্যোগে আয়োজিত বিক্ষোভ মিছিলকে ঘিরে হাজারো জনতার প্রতিবাদে মুখর হয়ে উঠে বৃহত্তর লালবাগের প্রধান সড়কগুলো।

পরে মিয়ানমারে রোহিঙ্গা মুসলিমদের নির্বিচারে হত্যা ও নির্যাতনের প্রতিবাদে আজিমপুর এতিম খানার সামনে শান্তিতে নোবেল জয়ী অং সান সু চিকে জঙ্গি নেত্রী আখ্য দিয়ে কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে বিক্ষুব্ধ ধর্মপ্রাণ মুসলমানেরা। সংগঠনটির পূর্বঘোষিত এই কর্মসূচিকে ঘিরে জুমার নামাজ শেষে ধর্মপ্রাণ মুসুল্লিরা বিভিন্ন মসজিদ থেকে মিছিল নিয়ে ঢাাকেশ্বরীতে এসে জড়ো হতে থাকেন। সেখান থেকে মিছিলটি পলাশী মোড় প্রদক্ষিন করে আজিমপুর মোড় হয়ে এতিম খানার সামনে গিয়ে শেষ হয়। জুমার নামাজ শেষে বিক্ষোভ পূর্ব সমাবেশে সংগঠনটির সভাপতি ইমাম হোসাইন বলেন, রোহিঙ্গা মুসলমানদের উপর নির্যাতন বন্ধ না হলে মিয়ানমারের সাথে সব ধরনের সম্পর্ক ছিন্ন করতে হবে। ফেরাউনের সময় শিশুদেরকে যেভাবে হত্যা করা হয়েছিল, ঠিক সেভাবে আরাকানেও নির্যাতন করা হচ্ছে। আরাকানে সূচিকে ডুবিয়ে মারা হবে। অবিলম্বে আরাকানের গণহত্যা বন্ধ করে মুসলমানদের নাগরিক অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার আহবান জানিয়ে সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক মাহামুদুল করিম খান বলেন, মিয়ানমার সরকার রোহিঙ্গাদের উপর নির্যাতন বন্ধ না করলে তাদের নাগরিক অধিকার ফিরিয়ে না দিলে বিশ্বের ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা রোহিঙ্গাদের অধিকার আদায়ে আরো কঠোর কর্মসূচি পালন করবে।