বাংলাদেশ হাইকমিশনের সামনে যুক্তরাজ্য বিএনপির নির্ধারিত বিক্ষোভ ও বিএনপির সমর্থকরার হামলা

570
gb

জিবিনিউজ২৪ ||

লন্ডনস্থ বাংলাদেশ হাইকমিশনে বিএনপির সমর্থকরা হামলা করেছে বলে বিভিন্ন স্যোশাল মিডিয়া প্রচারিত হচ্ছে। বুধবার দুপুরে বাংলাদেশ হাইকমিশনের সমানে যুক্তরাজ্য বিএনপির নির্ধারিত বিক্ষোভ কর্মসূচির এক পর্যায়ে কয়েকজন বিএনপি কর্র্মী পুলিশি বাঁধা উপেক্ষা করে হাইকমিশনের ভেতরে প্রবেশ করে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি ছিনিয়ে আনে এবং তাতে উত্তেজিত কর্মীরা জুতাদিয়ে আঘাত করতে দেখা গেছে একটি ভিডিও ফুটেছে।


এসময় কর্মীরা আমার নেত্রী আমার মা বন্ধী হতে দেবনা বলে চিৎকার করতে দেখা গেছে। উত্তেজিত কর্মীদের শান্ত করতে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করতে দেখা গেছে। ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে বিএনপি কর্মীরা ঠিক হাইকমিশনের প্রধান দরজার সামনে দাঁড়িয়ে শ্লোগান দিচ্ছে।
হাইকমিশনের এক কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে ঘটনার সত্যাতা স্বীকার করেছেন। তিনি জানিয়েছেন বিএনপি নেতৃবৃন্দ স্মারকলিপি প্রদানের নাম করে হাইকমিশনে প্রবেশ করে ভাংচুর করেছে। তবে কি পরিমানে ভাংচুর হয়েছে তা জানা যায়নি।

অন্যদিকে একটি ভিডিও ফুটেজে দেখা গেছে বিএনপির সভাপতি এম এ মালেক সাহসিক এঘটনার জন্য বিএনপির নেতৃবৃন্দকে স্বাগত জানিয়ে বক্তব্য দিচ্ছেন। তিনি বলেন, শত শত লোক হাইকমিশন ঘেরাও করে রেখে। আমাদের নেত্রীর পক্ষে মানুষ অবস্থান নিয়েছে। তিনি হাই কমিশন ভাংচুর করায় নেতাকর্মীদের ধন্যবাদ জানান।
অন্যদিকে সাধারণ সম্পাদক কয়ছর এম আহমদ বলেন হাই কমিশনার পালিয়ে গেছে। ব্রিটিশ পুলিশ হাইকমিশনে প্রবেশ করে হাই কমিশনকে খুজে পায়নি। তিনিও নেতাকর্মীদের ধন্যবাদ জানান।
বিভিন্ন সূত্রে জানাগেছে পুলিশ বেশ কয়েকজনকে আটক করেছে। এরমধ্যে স্বেচ্ছাসবেক দলের সভাপতি নাসির আহমদ শাহিনও রয়েছেন।

লন্ডন সময় রাত ৯টার দি‌কে বাংলাদেশ হাইকমিশন এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানিয়েছে, বিএনপি নেতাকর্মীরা স্মারকলিপি দেওয়ার নামে জোর করে হাইক‌মিশ‌নে প্র‌বেশ ক‌রে। এরপর তারা হাইকমিশ‌নের কর্মীদের ওপর হামলা চালায় এবং হাইকমিশনের আসবাবপত্রসহ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ছবি ভাঙচুর করে। এ সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে হাইক‌মিশন কর্মকর্তা এ কে এম কামাল লোহানীর সই রয়েছে‌।