চাঁপাইনবাবগঞ্জে হত্যা মামলায় ৬ জনের যাবজ্জীবন

88
gb

জাকির হোসেন পিংকু,চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি:
চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলায় নাইম হত্যা মামলায়  ৬ জনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদন্ড,প্রত্যেককে ১ লক্ষ টাকা করে অর্থদন্ড অনাদায়ে আরও ১ বছর করে কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। একই মামলায় অপর ৭ আসামীকে বেকসুর খালাস দেয়া হয়েছে।
সোমবার(২৮’অক্টোবর) দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জের অতিরিক্ত দায়রা জজ শওকত আলী দন্ডিত ৫ আসামীর উপস্থিতিতে রায় ঘোষণা করেন।
দন্ডিতরা হলেন,শিবগঞ্জের কাগমারি গ্রামের আব্দুল হান্নানের ছেলে বারিউল ইসলাম বাইরুল (৩৭),একই গ্রামের মৃত আনিসুর রহমানের ছেলে মো. মহাজন(৪৭),একই উপজেলার চাদপুর গ্রামের মৃত.জালালউদ্দিনের ছেলে তফিকুল ইসলাম তফিক (৩৮),কয়লারদিয়াড় গ্রামের  তোজাম্মেল বিশ্বাসের ছেলে শফিকুল আলম(৫৩), একই গ্রামের  মৃত.সাইফুল হকের ছেলে সিরাজুল ইসলাম ফিটু(৬৮) ও আলতাব হোসেনের ছেলে জেনারুল ইসলাম জেনারুল(৪৭)।
দন্ডিতদের মধ্যে জেনারুল ইসলাম জেনারুল পলাতক রয়েছেন।
নিহত নির্মাণ ¤্রমিক নাইম (২০)  শিবগঞ্জের কাগমারী গ্রামের গিয়াস উদ্দিনের ছেলে।
মামলার বরাতে সরকারী আইনজীবী আঞ্জুমান আরা জানান, ২০০৭ সালের ৮ অক্টোবর দিবাগত রাতের কোন এক সময়  শিবগঞ্জের কাগমারী গ্রামের একটি আমবাগানে পূর্ব শত্রæতার জেরে নাইমকে গলা কেটে হত্যা করা হয়। এ ঘটনায় পরদিন ৯’অক্টোবর শিবগঞ্জ থানায় মামলা করেন নিহতের মা টুকিয়ারা বেগম। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা(আইও) ও সিআইডি,চাঁপাইনবাবগঞ্জের তৎকালীন উপপরিদর্শক (এসআই) সেকান্দার আলী ২০০৮ সালের ৪ সেপ্টেম্বর আদালতে ১৩ জনকে অভিযুক্ত করে চার্যশীট দাখিল করেন।
দীর্ঘ শুনানী,১৪ জনের সাক্ষ্য ও প্রমাণের পর সোমবার আদালত  ৬ জনকে দোষি সাব্যস্ত করে দন্ডাদেশ ঘোষণা করেন। আসামী পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন আ্যাড.মাইনুল ইসলাম।  #