দেশ থেকে অবৈধ পথে পাচার করা টাকা দিয়ে ভারতে বিলাশ বহুল বাড়ী কিনেছেন পলাশবাড়ীর শ্যামল সাহা! সাংবাদিকের বিরুদ্ধে মামলা করার হুমকি

116
gb

গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি//

বাংলাদেশ থেকে অবৈধ পথে পাচার করা টাকা দিয়ে ভারতে বিশাল বহুল বাড়ী কিনেছেন পলাশবাড়ী উপজেলা সদরের ব্যাবসায়ী শ্যামল সাহা ও নির্মল সাহা। এ ছারা দেশে রয়েছে কোটি টাকার জমির উপর নির্মানাধীন তিন তলা ২ টি বাড়ী ৩ টি দোকান। বৈধ ব্যবসার আড়ালে অবৈধ ব্যবসা ব্যবসা করেই কোটিপতি হয়েছেন শ্যামল সাহা ও ছোট ভাই নির্মল সাহা এমন অভিযোগ রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে। সনাতন ধর্মী হলে ও চতুর এই দুই ভাই সব সময় মেলামেশা করতেন বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের ছত্রছায়ায়।যার ফলে এদের বিরুদ্ধে কেউ কথা বলার সাহস পায় না।কতিপয় পুলিশ সদস্যদের সাথে সখ্যতা গড়ে তুলে সময়ের ব্যাবধানে তারা জিরো থেকে হিরো বনে গেছেন। তাদের বিরুদ্ধে কোন সংবাদ প্রচার প্রকাশিত হলে কতিপয় ওই সব নেতা সাংবাদিকদের উপর নাখোস হয়।বিভিন্ন ভাবে সাংবাদিকদের উপর মামলা করার ভীতি প্রদর্শন করে। বড় ভাই শ্যামলের অবৈধ ব্যাবসার ম্যানেজ প্রক্রিয়া মুলত করে থাকেন ছোট ভাই নির্মল সাহা। নির্মল সাহা দিনে ব্যাবসা ও রাতে সেই সব রাজনৈতিক নেতাদের সাথে লক্ষ লক্ষ টাকার তাসের আড্ডায় মেতে থাকেন! নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন ব্যাক্তি বলেন, আয়কর অফিসের কতিপয় দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তারা তাদের নিকট থেকে নিয়মিত মাসোহারা আদায় করতো। নির্মল ও শ্যামল সাহা কি ভাবে ভারতে টাকা পাচার করেন সে বিষয়ে বিস্তারিত জানতে চোখ রাখুন ৩য় পর্বে (চলবে) । (ভারতে রাজকীয় অবস্থায় নির্মল সাহা থাকেন বলে জানা যায়। এদিকে হুন্ডি মাধ্যমে অবৈধভাবে আয় করা অর্থ ভারতে পাচারের নিউজ করায় সাহাপট্টির বাবুরা নানা ধরণের ষরযন্ত্র করছেন বলে গুঞ্জন চলছে। বিষয়টি টক অব্য দ্যা টাউনে পরিণত হয়েছে। এদিকে সর্বসাধারণ মনে করেন অল্পদিনে প্রচুর সম্পদের মালিক যারা হয়েছেন তাদের অর্থের উৎস খুজে দেখতে সংশ্লিষ্ঠদের এগিয়ে আসা প্রয়োজন।

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন