আমেরিকায় ফেঞ্চুগঞ্জ পরিবারের বনভোজন

35
gb
-জুয়েল খান মিশিগান থেকে
ভর দুপুরে  সুর্যটা তখন মাথার উপরে। গ্রীস্মের এই সোনালী দুপুরে প্রকৃতিতে ঘেরা ওয়ারেনের হেলমিছ পার্কের সবুজ প্রান্তর   প্রানবন্ত হয়ে উঠছিল পরিবারের সদস্যদের আগমনে। প্রবাসের কর্মব্যস্ত জীবনে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা মানুষগুলো যখন ধীরে ধীরে একত্রিত হচ্ছিলো আর পরিবারের সদস্যদের পদচারণায়  মুখরিত হয়ে উঠছিল সবুজ  প্রান্তরটা। আমেরিকার মিশিগান বসবাসকারী ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা অধিবাসীদের একত্রিত করার সুযোগ করে দিয়েছিল ফেঞ্চুগঞ্জ পরিবার অব মিশিগান ইউএসএ সংগঠনটি। ৪ আগস্ট রবিবার মিশিগানের হেলমিছ পার্কে ফেঞ্চুগঞ্জ পরিবার অব মিশিগান ইউএসএর বার্ষিক বনভোজন অনুস্টিত হয়। শুরুতেই বেলুন উড়িয়ে মেলার আনুস্টানিক উদ্বোধন করেন ফেঞ্চুগঞ্জ পরিবার অব মিশিগান ইউএসএ সংগঠন টির সিনিয়র সদস্যরা। বনভোজন পরিচালনা কমিটির আহ্বায়ক শাহজাহান কিবরিয়া লিটনের সভাপতিত্ব এবং বাবুল মিয়া সুহেলের প্রানবন্ত পরিচালনায় শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন ইঞ্জিনিয়ার আব্দুল আহাদ.আব্দুল আহাদ সেলিম.আব্দুল হালিম.আব্দুল হক চৌধুরী.আলই মিয়া. খেলা মিয়া.   আবুল কালাম.সজল আলী.জূলহাস খান.ইকবাল সেলিম.আবুল কাহের. লিমন আহমদ. লুৎফুল চৌধুরী. মহসিন আহমদ. এনাম আহমদ চৌধুরী. ফজলুল করিম. খোকন মিয়া.হারুন মিয়া.মঞ্জুর আহমদ. খলিল খান। শুভেচ্ছা বক্তব্য শেষে ফেঞ্চুগঞ্জ পরিবার অব মিশিগান ইউএস এর পরিবারের সদস্যদের বিভিন্ন বয়সের ছেলেমেয়েদের মধ্যে খেলাধুলা. বিবাহিত এবং অবিবাহিতদের মাঝে রশি টানাটানি খেলা.ভলিবল খেলাসমূহ নারীদের বিভিন্ন খেলা অনুস্টিত হয়। দিন শেষে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। বনভোজনে আমেরিকার মিশিগানে বসবাসকারী ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলার   অধিবাসীদের পরিবার গুলোর সদস্যসহ পাচ শতাধিক নারী পুরুষ ও শিশুরা অংশগ্রহণ করেন।
gb
মন্তব্য
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More