বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তির দাবীতে লন্ডনে ব্রিটিশ পার্লামেন্টের সামনে যুক্তরাজ্য বিএনপির মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ

280
gb
জিবি নিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম ||

 সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপির চেয়ারপার্সন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নি:শর্ত মুক্তির দাবীতে লন্ডনে ব্রিটিশ পার্লামেন্টের সামনেআজ ৪রা এপ্রিল বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে যুক্তরাজ্য বিএনপি। যুক্তরাজ্য বিএনপি সভাপতি এম এ মালিকের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক কয়ছর এম আহমেদ এর পরিচালনায় দুপুর ১.০০ টা থেকে টা পর্যন্ত অনুস্টিত বিক্ষোভ সমাবেশে যুক্তরাজ্য বিভিন্ন শহর হতে প্রবাসী বাংলাদেশীসহ বিএনপি এবং অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীগণ বিভিন্ন ধরনের প্লেকার্ডব্যানারফেস্টুন নিয়ে যোগ দিয়ে তীব্র প্রতিবাদ জানান।

মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ শেষে এক সংক্ষিপ্ত বক্তবে এম এ মালিক বলেনদেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে জাতীয় নির্বাচন প্রক্রিয়া থেকে দূরে রাখতে  হাসিনা সরকার রাজনৈতিক মামলাকে হাতিয়ার হিসাবে অব্যাহত ব্যবহার করছে। বিচার বাবস্থায় অবৈধ সরকারের নগ্ন হস্তক্ষেপ  করে বেগম খালেদা জিয়ার জামিন প্রক্রিয়ায় বাধা দিচ্ছে। সরকার বিচার ব্যবস্থার উপর হস্তক্ষেপ করে নিজে আদালতের ভূমিকায় অবতীর্ণ হয়েছে। রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত মামলার মাধ্যমে সরকার বিরোধী দলের কণ্ঠ স্তব্দ করে দেশে একদলীয় শাসন বাকশাল কায়েমের ষড়যন্ত্রে লিপ্ত।  বেগম খালেদা জিয়ার শারীরিক অসুস্ততা নিয়ে সরকারের লুকোচুরিতে জাতি আজ শঙ্কিত। তিনি আগামী ১৬২০শে এপ্রিল লন্ডনেঅনুষ্ঠিতব্য কমনওয়েলথ সরকার প্রধানদের সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে অবাঞ্ছিত ঘোষণা করে বলেন, গণতন্ত্রের পাদপীঠ ব্রিটেনে গনতন্ত্র হত্যাকারী ও দুর্নীতিবাজদের স্থান নাই।      

কয়ছর এম আহমেদ বলেন, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে জেল জুলুমের ভয় ভীতি দেখিয়ে বিচলিত করা যাবে না। দেশনেত্রীর শক্তি জনগণের শক্তি,বিএনপি জনগণকে সাথে নিয়ে ঐক্যবদ্ধ ভাবে আওয়ামী বাকশালীদের সকল ষড়যন্ত্র মোকাবিলা করতে প্রস্তুত। দেশে ও প্রবাসের জনগন দূর্বার আন্দোলনের  মাধ্যমে দেশনেত্রীকে মুক্ত জনগনে মধ্যে শীঘ্রই  ফিরিয়ে আনবে। তিনি বলেন,     অবৈধ সরকারের বিদায় ঘন্টা বেজে যাওয়ায় তাদেরসাজানো মসনদে ভূমিকম্প শুরু হয়েছে। অবৈধ সরকার অভিলম্বে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া  দেশনায়ক তারেক রহমানের উপর থেকেসকল মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার এবং সুদূরপ্রসারী ষড়যন্ত্রমূলক হয়রানির পরিকল্পনা বন্ধ না করলে তার দাঁতভাঙ্গা জবাব দিতে প্রস্তুত যুক্তরাজ্যবিএনপি।    

মানব বন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাজ্য বিএনপির সাবেক উপদেষ্টা শায়েস্তা চৌধুরী কুদ্দুছ, সাবেক সিনিয়র সহসভাপতি আব্দুল হামিদ চৌধুরী, সাবেক সহসভাপতি মুজিবুর রহমান মুজিব, এম লুতফুর রহমান, মোঃ গোলাম রাব্বানী, সাবেক সহসভাপতি গোলাম রাব্বানী সোহেলসাবেক সহসভাপতি তাজুল ইসলাম, সাবেক যুগ্ম-সম্পাদক কামাল উদ্দিন, সাবেক সিনিয়র সদস্য আলহাজ্ব সাদিক মিয়া, আশরাফুল ইসলাম হীরা, মিসবাউজ্জামান সোহেল,  সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক শামিম আহমেদ, খসরুজ্জামান খসরুসাবেক ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক আবু নাসের শেখ, সাবেক সেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক আসাদুজ্জামান আকতার, সাবেক সহদপ্তর সম্পাদক সেলিম আহমেদ, সাবেক সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব, সাবেক সদস্য এ জে লিমন,    

ইস্ট লন্ডন বিএনপির সভাপতি ফখরুল ইসলাম বাদল, সাউথ ইস্ট বিএনপির সভাপতি সালেহ আহমেদ জিলান, নিউহাম বিএনপির সভাপতি মোস্তাক আহমেদ, মিল্টন কিংস বিএনপির সভাপতি আব্দুল ওয়াদুদ সাহেল, সাসেক্স বিএনপির সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন, এনফিল্ড বিএনপির সভাপতি হেলাল উদ্দিন, সেন্ট্রাল লন্ডন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক জুয়েল আহমেদ, লন্ডন নর্থ ওয়েস্ট বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি আব্দুস শহিদ, সেন্ট্রাল লন্ডন বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি সৈয়দ শাহিন আহমেদ, মিল্টন কিংস বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি আব্দুল মজিদ, বিএনপি নেতা আসাদুজ্জামান আহমেদ, মিসবাউজ্জামান বাবু, নাজমুল হোসেন চৌধুরী, যুক্তরাজ্য যুবদলের সভাপতি রহিম উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক আফজাল হোসেন, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি নাসির আহমেদ শাহিনসাধারণ সম্পাদক আবুল হোসেন, সিনিয়র সহসভাপতি মিসবাহ চৌধুরী বি এস, জাসাস সভাপতি এমাদুর রহমান এমাদ, সাধারণ সম্পাদক তাজবির চৌধুরী সোহেল, মহিলা দলের সদস্য সচিব আওঞ্জনা আলম, কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সহ-সভাপতি শফিকুল ইসলাম রিবলু,লন্ডন মহানগর বিএনপির সহ-সভাপতি সাহেদ উদ্দিন চৌধুরী, আব্দুস সালাম আজাদ ,আব্দুর রব, সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ চৌধুরী, আবু তাহের, মোঃ জিয়াউর রহমান, এডভোকেট শেখ তারিকুল ইসলাম, কামরুন্নহার সাহানা, আবু নোমান, শামসুল ইসলাম, মোঃ ওমর গনি, ফজলে রহমান পিনাক, শাকিল আহমদ, আব্দুস সামাদ রাজ, দেলেয়ার হোসেন, জামাল হোসেন, লাল মিয়া, আরিফুল হক, হাসান জাহেদ, মোহাম্মদ শাহজাহান, ইস্ট লন্ডন বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মো: নুরে আলম সোহেল, লুৎফুর রহমান, মো:মাইনউদ্দিন, মো:হাসান আহম্মেদ, মাকসুদুর রহমান, মিজানুর রহমান, জামাল উদ্দিন, মোহাম্মদ সাইফুল আলম, মো:হাসনাইন, হারুনুর রশিদ (রানা), মাহাবুবর রহমান ফাহিম, ফয়সাল আহম্মেদ,শাকিল আহম্মেদ, মো:মিজান, নিউহাম বিএনপির তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক মোঃ মাকসুদুর রহমান, যুবদলের সিনিয়র সহসভাপতি আব্দুল হক রাজ, দেওয়ান আব্দুল বাছিত, বাকি বিল্লা, জাসাসের সহসভাপতি বদরুল ইসলাম, যুগ্মসম্পাদক হাবিবুর রহমান হাবিব, স্বেচ্ছাসেবক দলের সাংগঠনিক সম্পাদক জিয়াউর রহমানপ্রচার সম্পাদক জুল আফরোজ, বদরুল ইসলাম, ছাত্রনেতা ইমতিয়াজ এনাম তানিম, পারভেজ আহমেদ রাকিব, সুয়েব আহমেদ, মাসুম বিল্লা, মাসুদুর রহমান প্রমুখ।