বাগেরহাটে হাসপাতালে ভ্যাকসিন সংকট, এলাকায় আতঙ্ক দু’দিনে বেওয়ারিশ কুকুরের আক্রমনে ২৭ জন আহত

585
gb

এস.এম. সাইফুল ইসলাম কবির, বাগেরহাট অফিস ||

বাগেরহাটের শরণখোলায় গত দ’ুদিনে বেওয়ারিশ কুকুরের আক্রমনে ২৭ ব্যক্তি আহত ও একটি গবাধি পশুর মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কুকুরে কামড়ানো রোগীর ভীড় সামলাতে হিমশিম খেতে হচ্ছে চিকিৎসকদের। এর আগে দু-একজন রোগী হাসাপাতালে এলেও গত বুধ ও বৃহস্পতিবার কুকুরে কামড়ানো রোগীর সংখ্যা সর্বোচ্চ বলে চি কিৎসকরা জানান।
এদিকে, হাসপাতালে ভ্যাকসিন না থাকায় আরো বিড়ম্বনায় পড়েছেন চিকিৎসকরা। বাধ্য হয়ে বাইরে থেকে চড়া দামে ভ্যাকসিন কিনে চিকিৎসা নিতে হচ্ছে রোগীদের। উপজেলার সর্বত্র এখন কুকুর আতঙ্ক বিরাজ করছে। আক্রান্তদের মধ্যে উপজেলার বানিয়াখালী গ্রামের মোস্তফা সিকদার (৪৫) ও খাদা গ্রামের কাজল আকনকে (৬৫) গুরুতর অবস্থায় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
হাসাপাতালে চিকিৎসা নেওয়া রোগীরা হলেন, নাসিমা (৩৬), সুমি (১২), নিসা (৬), নাইমা (১০), আরিফুল (১০), সামিয়া (১১), শাজাহান (১০), জামিলা (২), তাসলিমা (৪৮), সরোয়ার (৩৫), আল-আমিন (৩৫), শামসুন্নাহার (৬০), ফাতেমা (১৪), ইমরান (৭), ইয়ামিন (৯),  শিমুল (১৪), নারগীস (১৫), জারিন (১), হালিম (৫৬), সাদিয়া (১২), ফাতেমা বেগম (৪০), জান্নাতী (১০), আলী হাসান (৬০), জাহানুর (৬০), রুমন (১৪)। এদের বাড়ি উপজেলার খোন্তাকাটা, রাজাপুর, খাদা ও বাংলাবাজার এলাকায়। হাসাপাতালের রেজিস্ট্রার থেকে এ তথ্য পাওয়া গেছে। এছাড়া, উপজেলার রায়েন্দা ইউনিয়নের লাকুড়তলা গ্রামের কালাম হওলাদারের একটি গরু কুকুরের কামড়ে আক্রান্ত হয়ে শুক্রবার সকালে মারা গেছে। এভাবে উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় কুকুরে কামড়ে বহু গরু-ছাগল আহত হয়েছে বলে জানা যায়।
হাসপাতাল গেটের জাহান মেডিকেল হলের মালিক পল্লী চিকিৎসক টিএম মনিরুজ্জামান মাসুম জানান, প্রতিদিন কমবেশি কুকুরে কামড়ানো গবাধি পশুর ভ্যাকসিন বিক্রি হচ্ছে। তাছাড়া ভ্যাকসিনরে দাম বেশি হওয়ায় অনেকেই স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা করায় অনেক গরু, ছাগল মারা যাচ্ছে। সরকারিভাবে জরুরী ভিত্তিতে বেওয়ারিশ কুকুর নিধনের ব্যবস্থা নেওয়ার দাবি জানান তিনি।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. অসীম কুমার সমাদ্দার জানান, ধারণা করা হচ্ছে কুকুরগুলো জলাতঙ্ক রোগে আক্রান্ত হওয়ায় মানুষ ও গবাধি পশুর ওপর আক্রমণ করছে। হাসপাতালে ভ্যাকসিন না থাকায় রোগীদের নিয়ে বিড়ম্বনায় পড়তে হচ্ছে। ভ্যাকসিনের জন্য জেলা সিভিল সার্জন অফিসে চিঠি পাঠানো হয়েছে।
উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা লিংকন বিশ্বাস জানান, গত কয়েকদিন ধরে কুকুরের আক্রমণে মানুষ ও গবাধি পশু আক্রান্ত হওয়ার খবর আসছে। এ ব্যাপারে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সাথে আলাপ করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।