মৌলভীবাজার বড়লেখায় পাষন্ড স্বামীর হাতে স্ত্রী খুন

110
gb

বিশেষ প্রতিনিধি।।জিবি নিউজ।।

মৌলভীবাজারের বড়লেখায় পান্না বেগম (৩২) নামে এক গৃহবধুকে তার স্বামী ছুরিকাঘাত করে হত্যা করেছেন বলে অভিযোগ ওঠেছে।

সোমবার (১০ জুন) সকালের দিকে উপজেলার নিজবাহাদুরপুর ইউনিয়নের দৌলতপুর এলাকায় এই ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর থেকে নিহতের স্বামী মতছিন আলী পলাতক রয়েছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, প্রায় ১০ বছর আগে বড়লেখা উপজেলার তালিমপুর ইউনিয়নের কলারতলিপার গ্রামের মাখই মিয়ার ছেলে মতছিন আলীর সাথে বিয়ানীবাজার উপজেলার পাড়িয়াবহর গ্রামের ইসমাইল আলীর মেয়ে পান্না বেগমের বিয়ে হয়। পরিবারে তাদের দুটি সন্তান রয়েছে। প্রায় ৪ মাস আগে স্বামীর নির্যাতন সহ্য করতে না পেরে দুই বছরের শিশু সন্তানকে নিয়ে বাবার বাড়ি পাড়িয়াবহরে চলে যান পান্না বেগম। ওই সময় বড় মেয়ে সুহানাকে (৭) শ্বশুর বাড়ির লোকজন রেখে দেয়। এদিকে সম্প্রতি সুহানা নিজ বাহাদুরপুর ইউনিয়নের ইটাউরী গ্রামে তার ফুফুর বাড়িতে বেড়াতে যায়। সেখানে সে অসুস্থ হয়ে পড়ে। মেয়ে সুহানার অসুস্থতার খবর পেয়ে পেয়ে পান্না বেগম তাকে দেখতে ইটাউরীতে (পান্নার ননদের বাড়ি) যান।

বড়লেখা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইয়াছিনুল হক বলেন, ‘পারিবারিক কলহের জেরে পান্নাকে তার স্বামী ছুরিকাঘাত করে হত্যা করেছেন বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। পান্নার শরীরের কয়েক জায়গায় আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। লাশ সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার পর থেকে ঘাতক স্বামী মতছিন আলী পলাতক। আমরা আলামত সংগ্রহ করার পাশাপাশি ঘাতককে গ্রেপ্তারের চেষ্টা করছি।’

gb
মন্তব্য
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More