খালেদা জিয়ার মুক্তি নিয়ে সরকার সর্বনাশা খেলায় মেতেছে: রিজভী

79
gb

ঈদের দিনের খালেদা জিয়াকে আটকে রাখায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। বলেছেন, ‘আজ ঈদের দিন, উৎসবের দিন, অথচ এই ঈদের প্রাক্কালে জনগণের প্রত্যাশা ছিল অন্যায়ভাবে কারাবন্দি করে রাখা দেশনেত্রীকে মুক্তি দেয়া হবে। কিন্তু সরকার দেশনেত্রীর মুক্তি নিয়ে এক সর্বনাশা খেলায় মেতেছে। দেশকে চিরদিনের মতো আওয়ামী খাঁচায় বন্দি করে রাখার জন্য গণতন্ত্রকে ধ্বংসস্তূপে পরিণত করার চূড়ান্ত লক্ষ্য হিসেবে খালেদা জিয়াকে বন্দিশালায় রাখা হয়েছে।’

বুধবার দুপুরের দিকে রাজধানীর নয়াপল্টন এলাকায় বিক্ষোভ মিছিল শেষে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন। এর আগে বৃষ্টির মধ্যেই দলের নেতাকর্মীদের নিয়ে মিছিল করেন তিনি।

ঈদের দিনে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে এই মিছিলের আয়োজন করা হয়।

মিছিল শেষে বক্তৃতায় রিজভী আহমেদ বলেন, দেশ ও জনগণ আজ বাকশালী কারাগারে বন্দি। একদলীয় শাসনের চিরস্থায়িত্ব দেয়ার জন্যই বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে বন্দি করা হয়েছে। কর্তৃত্ববাদী শাসন দীর্ঘস্থায়ী করতেই গণতন্ত্রকে কবর দেয়া হয়েছে।

ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আরিফুর রহমান নাদিম, তাঁতী দল কেন্দ্রীয় কমিটির আহ্বায়ক আবুল কালাম আজাদ, সদস্য সচিব হাজী মুজিবুর রহমান, মৎস্যজীবী দল কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সচিব আব্দুর রহিম, সিনিয়র যুগ্ম আহ্বায়ক নাদিম চৌধুরী, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবদলের সাধারণ সম্পাদক গোলাম মাওলা শাহিন, স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র সহ-সভাপতি রফিক হাওলাদার, ছাত্রদল কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক দফতর সম্পাদক আব্দুস সাত্তার পাটোয়ারী, মহানগর পূর্বের সাংগঠনিক সম্পাদক রবিউল ইসলাম নয়নসহ অঙ্গসংগঠনের অর্ধশতাধিক নেতাকর্মী মিছিলে অংশ নেন।

gb

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More