৫০ সংরক্ষিত নারী আসনের তফসিল ১৭ ফেব্রুয়ারি

উপজেলা পরিষদ নির্বাচন

69
gb

জাতীয় সংসদে ৫০ সংরক্ষিত নারী আসনে জনপ্রতিনিধি নির্বাচনে আগামী ১৭ ফেব্রুয়ারি তফসিল ঘোষণা হবে।

এবার পাঁচ ধাপে উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। মার্চের প্রথম সপ্তাহ থেকে বিভাগভিত্তিক ভোট নেয়া হবে। আট বিভাগে চার ধাপে এবং অবশিষ্টগুলোর মেয়াদ শেষ হলে একসঙ্গে ভোট হবে।

সোমবার বিকালে কমিশনের ৪২তম এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে চারটি এজেন্ডা ছিল।

সভায় সংরক্ষিত নারী আসনের তফসিল নির্ধারণ, কিশোরগঞ্জ-১ আসনের তফসিল নির্ধারণ, পঞ্চম উপজেলা নির্বাচনের প্রস্তুতি এবং জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের স্মারকলিপি বিষয়ে আলোচনা হয়।

সদর উপজেলার সব কেন্দ্রে ভোট হবে ইভিএমে। ফেব্রুয়ারির প্রথম সপ্তাহে বিস্তারিত তফসিল ঘোষণা হবে।

সোমবার কমিশন সভাশেষে ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ সাংবাদিকদের এ তথ্য দেন।

সচিব বলেন, সংরক্ষিত ৫০ নারী আসনের প্রার্থী মনোনয়নের বিষয়ে সংসদে প্রতিনিধিত্বকারী দল ও স্বতন্ত্র সংসদ সদস্যদের দল এবং জোটগত অবস্থান জানাতে চেয়ে চিঠি দেবে ইসি। ৩০ জানুয়ারির মধ্যে এ বিষয়ে কমিশনকে অবহিত করতে হবে।

আগামী ১২ ফেব্রুয়ারি প্রকাশ করা হবে এ নির্বাচনের ভোটার তালিকা। বিস্তারিত তফসিলে মনোনয়নপত্র দাখিল, মনোনয়নপত্র বাছাই ও প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ সময় জানা যাবে।

তিনি বলেন, সাবেক জনপ্রশাসনমন্ত্রী, সংসদ সদস্য সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের মৃত্যুতে কিশোরগঞ্জ-১ আসন শূন্য ঘোষণাসংক্রান্ত জটিলতায় তফসিল নির্ধারণ করা হয়নি।

সচিব বলেন, একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে অনিয়ম, পুনর্নির্বাচনসহ জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের বিভিন্ন অভিযোগ ও দাবি নাকচ করেছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

কমিশন বলেছে, কেউ সংক্ষুব্ধ হলে নির্বাচনী ট্রাইব্যুনালে গিয়ে মামলা করতে পারেন। কেন্দ্রভিত্তিক ফল রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছ থেকে সংগ্রহ করার কথা জানিয়েছে ইসি।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সভায় তিন কমিশনার, ইসি সচিব ও ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার দেশের বাইরে অবস্থান করায় তিনি সভায় উপস্থিত ছিলেন না।

gb
মন্তব্য
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More