কবি নাজমুল ইসলাম মকবুল’র ৭ম, ৮ম ও ৯ম অ্যালবামের মোড়ক উন্মোচন

171
gb

‘সিলেট লেখক ফোরাম সভাপতি কবি নাজমুল ইসলাম মকবুল’র কথা ও সুরে ৭ম, ৮ম ও ৯ম সঙ্গীতের অ্যালবাম মজলুমের আর্তনাদ, চাবুক এবং তেলের তেলেসমাতি এর মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে। ২০ নভেম্বর মঙ্গলবার সিলেটের লালা বাজার এলাকার টেংরাস্থ আল-মুছিম স্কুল এন্ড কলেজ অডিটরিয়ামে ‘সিলেট লেখক ফোরাম’ আয়োজিত সংগঠনের উপদেষ্টা, ওয়ান পাউন্ড হসপিটাল ইউ,কের চেয়ারপার্সন ডাঃ কবি শাহনুর আলী মামুনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন লন্ডনের খ্যাতিমান সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব, বেতার বাংলা শ্রোতা ফোরাম ইউ,কের জেনারেল সেক্রেটারী কবির আহমদ। প্রধান আলোচকের বক্তব্য রাখেন সিল-টিভির এম.ডি ও জালালাবাদ রোটারী ক্লাবের সদ্য সাবেক সেক্রেটারী রোটারিয়ান মাহবুবুল আলম মিলন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে কবির আহমদ বলেন, কবি নাজমুল ইসলাম মকবুল’র রয়েছে ভিন্ন ধারার ভিন্ন আমেজের গান লেখার অভিজ্ঞতা। তিনি বলেন, সুবিধাবাধী ভদ্রবেশী মতলববাজরাই জনগনের হক নষ্ট করে অবৈধ পন্থায় কালো টাকার মালিক হয়ে তাদের হীন স্বার্থে লাটিয়াল চাটুকার দালাল চামচা পুষে সমাজে অশান্তির আগুন জিইয়ে রাখে। এক্ষেত্রে নয় নয়টি সঙ্গীতের অ্যালবাম উপহার দেবার মাধ্যমে খ্যাতিমান সাংবাদিক কলামিস্ট কবি নাজমুল মতলববাজদের বাস্তব প্রতিচ্ছবি সঙ্গীতের মাধ্যমে তুলে ধরে মজলুমদের পক্ষে দাঁড়িয়েছেন। গীতিকারের ছয়টির সাথে বর্তমান তিন তিনটি অ্যালবাম সমাজের বিভিন্ন অসংগতি দুরিকরণসহ সঙ্গীতপিপাসুদের তৃপ্ত করবে বলে আমরা আশাবাদী।

প্রধান আলোচক রোটারিয়ান মাহবুবুল আলম মিলন বলেন, সুযোগসন্ধানী প্রতারক কতিথ সমাজপতি দুর্নীতিবাজ স্বার্থপর মতলববাজ ভন্ড নেতা পাতিনেতারাই নানান অপকর্মের মাধ্যমে আসল দেশপ্রেমিক নেতা ও সমাজসেবীদের সুনাম ক্ষুন্ন করছে। এদের কুট কৌশল ও প্রতিহিংসায় প্রতারিত ও ক্ষতিগ্রস্থ হন দেশের নিরপরাধ সাধারন মানুষ। লেখনীর মাধ্যমে এদের সামাজিকভাবে প্রতিরোধে এগিয়ে এসেছেন কবি নাজমুল।

সভাপতির বক্তব্যে ডাঃ কবি শাহনুর আলী মামুন বলেন, কবি নাজমুল ইসলাম মকবুল’র লেখনিতে আমরা শীতালংশাহ, দুরবীন শাহ, হাসন রাজার লেখনির মেলবন্ধন খুঁজে পাই। একদিন তিনিও সেই স্থানে অধিষ্ঠিত হবেন, আমরা তা অবলোকন করছি।

অনুভুতি ব্যক্ত করতে গিয়ে কবি নাজমুল তাঁর বক্তব্যে বলেন, সিলেটসহ দেশ বিদেশের কবি সাহিত্যিক সাংবাদিক সমাজসেবী পেশাজীবিরা আমাকে যেভাবে সহযোগীতা করে যাচ্ছেন কৃতজ্ঞতা জানানো ছাড়া প্রতিদান দেবার সাধ্য আমার নেই। লেখনীর মাধ্যমে আজীবন যেন মানুষের কল্যাণে কাজ করে যেতে পারি সে দোয়া চাই সকলের। তিনি অ্যালবাম তিনটির স্পন্সর কবির আহমদ, মোস্তাক আহমদ, আরশ আলী গণি, আলহাজ¦ মোঃ শাহ আলম, মোঃ দুলু মিয়া, মোঃ আব্দুল্লাহ আল নোমান, মোঃ নজির আলী, আমিনুর মিয়া ও মোঃ একরাম উদ্দিনের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান এবং উৎসর্গকৃত সমাজসেবী আলহাজ¦ মোঃ জবান আলী, কবি শাহ কামাল আহমদ ও মোঃ খলিলুর রহমানের দেশ ও সমাজসেবায় তাদের অবদানের কথা কৃতজ্ঞতার সাথে স্মরণ করেন।

আব্দুল হালিমের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, বিশ^নাথ উপজেলা সহকারী শিক্ষা অফিসার কাউসার আহমেদ ভুইয়া, লন্ডনের খ্যাতিমান সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব মোঃ নজির আলী, ৩নং অলংকারী ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান সায়েকুর রহমান সায়েক, আনিলগঞ্জ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কবি আখলাকুল আম্বিয়া বাতিন, আল-মুছিম স্কুল এন্ড কলেজের পরিচালনা কমিটির সভাপতি মোঃ আব্দুল কাইয়ুম, প্রিন্সিপাল মোঃ মানিক মিয়া, প্রবীণ সালিশ ব্যক্তিত্ব মজিরুল ইসলাম তকবির মিয়া, জালালপুর সাহিত্য পরিষদ সভাপতি কবি সুমন খান, জবান উল্লাহ হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক উসমান গণি, তাহির মিয়া একাডেমীর প্রধান শিক্ষক নজরুল ইসলাম।

gb
মন্তব্য
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More