বেনাপোল বন্দরে আমদানিকৃত পণ্য চুরি: চোর আটক

367
gb

বেনাপোল :

বেনাপোল বন্দরের ৩১ নং ট্রান্সশিপমেন্ট ইয়ার্ডের সামনের রাস্তায় থাকা ভারতীয় ট্রাক থেকে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে আমদানিকৃত পণ্য চুরির ঘটনা ঘটেছে।

চুরির সাথে জড়িত ইয়াছিন নামে এক চোরকে আটক করে ছেড়ে দিয়েছে নাইড গার্ড সদস্যরা। তবে ঘটনাটি বন্দর কর্তৃপক্ষ ও নিরাপত্তা কর্মিরা জানে না বলে জানান।

এলাকাবাসিরা ও নাইট গার্ড সদস্যরা জানান, উঠতি বয়সের এক দল কিশোর বেনাপোল বন্দরের নিরাপত্তা কর্মিদের ম্যানেজ করে প্রতিদিন সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত বিভিন্ন শেড ও ট্রাক ভেঙ্গে চুরি করছে। বন্দর কর্তৃপক্ষ এদের কাছে জিম্মি হয়ে পড়েছে।

বৃহস্পতিবার গভীর রাতে বন্দর অভ্যন্তরে প্রবেশ করে ইয়াছিন (১৩) সাজু (১৭) নামে ২ চোর। এসময় তারা ৩১ নং ট্রান্সশিপমেন্ট ইয়ার্ডে সামনে থাকা ভারতীয় ট্রাকের দরজা ভেঙ্গে হুইল রেঞ্চ, জগলেবার ও ট্রামে রক্ষিত আমদানিকৃত ইসপঞ্চ আয়রণ চুরি করে। ঘটনাটি জানতে পেরে বন্দর এলাকার নাইটগার্ড সদস্যরা ছোট আঁচড়া গ্রাম থেকে ইয়াছিন নামে এক চোরকে আটক করে। পরে তার দেওয়া তথ্য অনুয়ায়ী একই গ্রামের সাজুর বাড়ি থেকে চুরি হওয়া মালামাল উদ্ধার করে। এসময় সাজু পালিয়ে যায়।

নাইটগার্ড প্রধান হাবিব মোড়ল জানান, ট্রান্সশিপমেন্টের সামনের রাস্তায় থাকা ট্রাক থেকে মাল চুরি করেছিল। মালামাল উদ্ধার হয়েছে। চোর খুব ছোট, একটা বাচ্চা ছেলে তাই এলাকার মানুষের অনুরোধে তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

বেনাপোল বন্দরের নিরাপত্তায় নিয়োজিত আনসার ব্যাটালিয়নের প্লাটুন কমান্ডার মহিদুল ইসলাম বলেন, ৩১ নং ট্রান্সশিপমেন্টের সামনে ট্রাক থেকে আমদানিকৃত পণ্য চুরি হয়েছে এটা আমার জানা নেই। তবে একটা ভারতীয় ট্রাক থেকে ব্যাটারী চুরি হয়েছে সেটা আমার জানা আছে। এ চুরির ঘটনা খবর নিয়ে দেখছি।