কোটালীপাড়ায় পুকুরে বিষ প্রয়োগে মাছ নিধন লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি

280
gb

এম আরমান খান জয়,গোপালগঞ্জ  ||

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় পূর্ব শত্রুতার জের ধরে পুকুরে বিষ প্রয়োগে মাছ নিধনে লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি করেছে একটি মহল। সরেজমিনে জানা যায়, উপজেলার শিতাইকুন্ড গ্রামের মুজিবুর রহমান হাওলাদারের ছেলে গফফার হাওলদার (৩০) একটি পুকুর পাঁচ শরিকের নিকট থেকে ৫ বছরের জন্য ৬০ হাজার টাকার বিনিময়ে লিখিত ভাবে গত ১লা ডিসেম্বর ২০১৭ ইং তারিখ হইতে লীজ নিয়ে মাছের চাষ করে আসছেন। গত ১১ ফেব্রæয়ারী সকালে পুকুরে মাছ মরে ভাষতে দেখে তিনি ঘটনাটি এলাকাবাসীকে জানান। হাবিব হাওলাদার, শরিফুল হাওলাদার, শহিদুল ইসলাম হাওলাদার, ফুরু মোল্লা, উম্বর আলী হাওলাদার, সাফিয়া বেগম সহ একাধিক এলাকাবাসী সাংবাদিকদের বলেন- পুকুরে অনেক মাছ ছিল, বিষ প্রয়োগেই এই মাছ গুলি মরে ভেষে উঠছে এবং পচে দূর্গন্ধ ছড়াইতেছে। এ ব্যাপারে ক্ষতিগ্রস্থ গফফার হাওলাদার বলেন- আমি ৫ বছরের জন্য লিখিত ভাবে লীজ নিয়ে মাত্র এ বৎসর মাছের চাষ শুরু করেছি। উত্তরপাড়া গ্রামের মৃত বিষা হাওলাদারের ছেলে, সর্ম্পকীয় চাচা শহিদুল হাওলাদারের সাথে পূর্বে থেকে আমার পারিবারিক দ্বন্দ আছে, যার কারনে সেই বিষ দিয়ে মাছ মেরে আমার প্রায় ২ লক্ষ টাকার ক্ষতি করেছে। আমি এই ক্ষয়-ক্ষতির সুষ্ঠু বিচার দাবি করছি। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানায় অভিযোগের প্রস্তুতি চলছে।