বিশ্বখ্যাত ভারতীয় গণিতজ্ঞ আনন্দ কুমারের বায়োপিক ‘সুপার থার্টি’র ফার্স্ট লুক টুইটারে প্রকাশ করেছে ছবিটির প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ফ্যান্টম ফিল্মস। ছবিটির মুখ্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন বলিউড সুপারস্টার হৃতিক রোশন। মঙ্গলবার ছবিটির প্রথম পোস্টার প্রকাশ করে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান টুইটারে লেখেন, আনন্দ কুমার চরিত্রে হৃতিক রোশন। ছবিটিতে দেখা যাচ্ছে, হৃতিকের গায়ে একটি সাধারণ মানের শার্ট, বেশ ক’দিনের না কাটা দাড়ি- গোঁফ আর অপরিপাটি চুল। অসাধারণ এই লুক প্রকাশের পর হৃতিক ভক্তরা দারুণ চমকিত ও উত্তেজিত। তারা বলেন, অনন্য এই লুক। এ যেন অন্য এক হৃতিক। যিনি শুধু গ্ল্যামার-স্টার নন, একজন অভিনেতাও। উল্লেখ্য, ছবিটিতে হৃতিকের বিপরীতে নায়িকা হিসেবে কে অভিনয় করবেন সেটি এখনো স্পষ্ট নয়।

777
gb

জিবিনিউজ ডেস্ক //

জেরার্ড পিকেকে নিয়ে উত্তাল ফুটবল দুনিয়া। আর সেই বিতর্কে জড়িয়ে গিয়েছেন শাকিরাও। লা লিগায় এস্পানিয়লের বিপক্ষে গোল করে মুখে আঙুল রাখার অঙ্গভঙ্গি করেছিলেন পিকে। যার অর্থ, তিনি দর্শকদের চুপ করতে বলছিলেন। যা দেখে কেউ খুব একটা খুশি হননি। লা লিগা কর্তৃপক্ষ পিকের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে এবং দোষী প্রমাণিত হলে তিনি এক থেকে তিন ম্যাচে নির্বাসিত হতে পারেন।

 

এস্পানিওলের ফুটবলভক্তরা যেভাবে তার বিরুদ্ধে আক্রমণাত্মক হয়ে ওঠেন, তা নজিরবিহীন। এমনকি, শাকিরাকেও ছাড়া হয় না। এবারের লা লিগা ম্যাচেও শাকিরার উদ্দেশে খুব খারাপ ব্যানার তুলে ধরা হয়েছিল গ্যালারিতে। স্প্যানিশ ভাষায় লেখা ব্যানারের একটির অনুবাদ করলে অর্থ দাঁড়ায় ‘শাকিরা সবার’। তাঁদের সন্তান মিলানকে নিয়ে পর্যন্ত খারাপ স্লোগান দিতে ছাড়েনি এই সব সমর্থকেরা।
সম্ভবত সে সব দেখেশুনেই মেজাজ হারিয়ে ফেলেছিলেন পিকে। তাই গোল করার পর দর্শকদের চুপ করতে বলছিলেন।  ক্ষুব্ধ পিকে যে কারণে ম্যাচের পরে বলেন, ‘গোলটা করার পরে ন্যূনতম যেটা করা উচিত ছিল, সেটাই করেছি। ওদের চুপ করতে বলেছি। তবে বেশি করে ওদের ক্লাবের কর্তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করা উচিত ছিল আমার।’
পিকের শাস্তি পাওয়ার সম্ভাবনা থাকলে, এস্পানিওল সমর্থকেরাও ছাড় পাচ্ছেন না। ক্লাবের পক্ষ থেকে তদন্ত করা হচ্ছে, কারা শাকিরার উদ্দেশে আপত্তিজনক ব্যানার নিয়ে এসেছিল। ক্লাবের পক্ষ থেকে শাকিরার বিরুদ্ধে আপত্তিজনক ব্যানার নিয়ে আসা সমর্থকদের শাস্তি দেওয়ার কথা ভাবা হচ্ছে। আগামী কয়েকটি ম্যাচে এই সব দর্শকরা প্রবেশাধিকার হারাতে পারেন।