পলাশবাড়ী পৌর শহরের ড্রেনেজ ব্যবস্থার উন্নত করার দাবী ব্যাপক ভোগান্তিতে পৌরবাসী

গাইবান্ধা জেলা প্রতিনিধি/

গাইবান্ধা জেলার পলাশবাড়ী উপজেলার সদর ইউনিয়ন ও পার্শ্ববর্তী আরো দুটি ইউনিয়ন হতে ৫ টি গ্রামের সম্বনয়ে ২৪ টি গ্রাম নিয়ে নবগঠিত পৌরসভা। এ পৌরসভা পরিচালনায় একটি কমিটি গঠিত হয়েছে চলছে পৌর কার্যক্রম। পৌর এলাকার ড্রেন গুলোর উন্নয়নে কতবার কত টাকা সরকারের কোষাগার হতে ব্যয় হলো তবুও ড্রেনেজ ব্যবস্থার উন্নয়ন হয়নি। উপজেলা সদরে ও পৌর এলাকায় পরিকল্পিত দীর্ঘমেয়াদী স্থায়ী সমাধানের জন্য ড্রেনেজ ব্যবস্থার দ্রত উন্নত কারনে সংশ্লিষ্টদের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহনে ভুক্তভোগীরা অনুরোধ জানিয়েছেন। বর্তমান সময়ে পলাশবাড়ী সদরের একমাত্র মাদার ড্রেনটি অকেজো হয়ে পড়েছে ফলে একটু বৃষ্টিতে উপজেলা গেট বঙ্গবন্ধু মার্কেটের সামনে পানি জমে যায় জলাবদ্ধতা সৃষ্টি হয়। উত্তর বঙ্গের বৃহৎ হাট বাজার কালীবাড়ী হাট বাজার। পলাশবাড়ী চৌমাথা হতে প‚র্ব পশ্চিমে উত্তর দক্ষিণ যে কোন পাশ্ব দিয়ে কালী বাড়ী হাট বাজারের প্রতিটি সড়কের পাশে ড্রেন গুলো যেন থেকেও মরে গেছে নোড়া পানি গুলো দুর্গন্ধ ছড়াচ্ছে। এতে করে যেমন ভোগান্তিতে পড়ছে তেমনি ড্রেন সংগøন বাসা রোগে বালাইয়ের আশংঙ্কা দেখা দিয়েছে। একটু বৃষ্টিতে ড্রেন উপচয়ে উঠে পানিতে নোংড়া পানি গোটা সড়কে ছোই ছোই করে ব্যাপক দুর্গন্ধ ছড়ায়। দ্রত সময়ে পৌর এলাকা ড্রেনেজ ব্যবস্থা উন্নতি ও সমস্যা সমাধানের লক্ষ কোন পরিকল্পনা আছে কি না এমন প্রশ্নের উত্তরে পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী সাজ্জাদ জানান,পরিকল্পনা তো আছেই উন্নত কারনে সেটা একটু সময়ের ব্যাপার তবে বর্তমান সময়ে এসব ড্রেন পরিস্কারের পর ময়লা ফেলানোর কোন জায়গা না থাকায় ড্রেন গুলো পরিস্কার করা সম্ভব হচ্ছে না একারণে এ দুর্ভোগের সৃষ্টি। তিনি আরো বলেন ময়লা মেলানোর জায়গা নির্ধারণে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও পৌর প্রশাসক সহ কমিটি কে জানানো হয়েছে। ময়লা ফেলার একটি নির্ধারিত স্থান পেলে আমরা দ্রæত ড্রেনেজ গুলো পরিস্কার করতে পারবো এতে একটু হলেও মানুষের ভোগান্তি কমবে।