পলাশবাড়ীতে শিক্ষক দ্বারা হিন্দু শিক্ষিকাকে শ্লীলতাহানীর অভিযোগ

166
ছাদেকুল ইসলাম রুবেল গাইবান্ধা প্রতিনিধি ||
গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে শিক্ষকের বিরুদ্ধে  হিন্দু শিক্ষকের অশ্লীলতাহানীর অভিযোগ উঠেছে।
ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার বেতকাপা ইউপির মুরারীপুর দ্বী মুখী উচ্চ বিদ্যালয়ে।এ ব্যাপারে ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও ম্যানেজিং কমিটির সভাপতির নিকট লিখিত অভিযোগ করেও কোন বিচার পায় নি শিক্ষিকা।
অভিযোগে জানা যায় বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মতলুবর রহমান বিএসসি দীর্ঘ দিন থেকে ওই বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষিকা দীপালি রানীকে বিভিন্ন ভাবে যৌন হয়রানির করে আসছিল।
গত কয়েকদিন আগে শিক্ষিকা দীপালি রানী সকালে স্কুলে এসে ক্লাস রুমে পরীক্ষার খাতা দেখছিল। বিদ্যালয়ে অন্য কেহ না থাকার সুযোগ নিয়ে লম্পট শিক্ষক পিছন থেকে শিক্ষিকাকে জরিয়ে ধরে। শিক্ষিকা প্রথমে লোক লজ্জার ভয়ে কাউ কে কিছু না বললে ও পরে প্রধান শিক্ষক ও সভাপতি বরাবরে লিখিত অভিযোগ দাখিল করে।
এদিকে লিখিত অভিযোগ দাখিলের দীর্ঘ দিন অতিবাহিত হলে ও লম্পট শিক্ষকের বিরুদ্ধে কোন ব্যাবস্থা গ্রহন করা হয় নি।
এ ব্যাপারে জানতে চাইলে অভিযুক্ত শিক্ষক মতলুবর রহমান জানান,আমি শুধু অসৌজন্যমূলক আচরন করেছি। আমি ক্ষমা ও চেয়েছি।
এলাকাবাসী জানান এই শিক্ষক ৮/৯ বছর আগে শিক্ষিকাকে একই কায়দায় শ্লীলতাহানি করেছিলেন।রাজনগর গ্রামে জনৈক্য ছাত্রীর সাথে একই ব্যাবহার করে জরিমানা দিয়েছেন।
এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের সাথে যোগাযোগ করার চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায় নি।