মেধাবী শিক্ষার্থীদের সহায়তায় মুসলিম এইড ইউকে’র কার্যক্রম প্রশংসনীয়: বদরুল ইসলাম শোয়েব

90
gb

সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার বদরুল ইসলাম শোয়েব বলেছেন, একটা সময় ছিল আমাদের দেশের হতদরিদ্রতা ও বিপদসংকুল লোকজন রিলিফের উপর নির্ভর ছিল। বর্তমানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এ দেশ থেকে ‘রিলিফ’ বিষয়টি বিলীন হয়ে যাচ্ছে। আমরা একটি আত্মনির্ভরশীল জাতি হিসেবে ক্রমেই বিশ্বের কাছে পরিচিত লাভ করছি। তিনি গতকাল মঙ্গলবার (১৬ জুলাই) দুপুরে মুসলিম এইড ইউকে বাংলাদেশ কান্ট্রি অফিসের বাস্তবায়নে মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে বৃত্তি বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি আরো বলেন, শিক্ষাগ্রহণের মূল উদ্দেশ্য হলো জ্ঞান অর্জন করে মনুষ্যত্ব লাভ করা। সকল অন্যায় ও অবিচারের বিরুদ্ধে সোচ্চার হওয়া এবং ব্যক্তি জীবনে যাবতীয় সৎ গুণাবলির চর্চা করা। পরিবার, সমাজ, দেশ সর্বোপরি সারাবিশ্বের কল্যাণের জন্য কাজ করা। তিনি বলেন, সুপ্ত প্রতিভা বিকাশে পরিচর্যা ও প্রশিক্ষণের পাশাপাশি অনুপ্রেরণা হিসেবে বৃত্তি কার্যকর ভূমিকা রাখে। আজকে যারা মুসলিম এইড ইউকে’র বৃত্তিপ্রাপ্ত হয়েছেন সেইসব শিক্ষার্থীকে দেশ ও জাতির কল্যাণে নিবেদিত হতে হবে। সিলেট নগরীর সেন্ট্রাল উইমেন্স কলেজ মিলনায়তনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ কবি আবুল কালাম আজাদ। মুসলিম এইড ইউকে বাংলাদেশ কান্ট্রি অফিসের এডুকেশন কো-অর্ডিনেটর মো. মাসুম বিল্লাহর সঞ্চালনায় বৃত্তি বিতরণ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিকৃবির শরীরচর্চা বিভাগের পরিচালক ছানোয়ার হোসেন মিঞা, অতিরিক্ত রেজিস্ট্রার এ কে এম ফজলুর রহমান। ইকো ইউএসএ’র অর্থায়নে সিলেটের বিভিন্ন কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের ৬২ জন মেধাবী শিক্ষার্থীকে প্রায় ৫ লক্ষাধিক টাকার চেক বৃত্তি হিসেবে প্রদান করা হয়।

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন