আসুন আমরা সকলে মিলে দেশ ও জাতির কল্যানে একসাথে কাজ করি

181
gb

 পি কে অলোক,ফকিরহাট।

খুলনা বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়া বলেছেন, আসুন আমরা সকলে মিলে দেশ ও জাতির কল্যানে এক সাথে কাজ করি। তিনি গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে বাগেরহাটের ফকিরহাট উপজেলার বেতাগায় ৫ম বেতাগা দিবস-২০১৮ উদযাপন উপলক্ষে ইউনিয়ন পরিষদ কর্তৃক আয়োজিত দিনব্যাপী টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট অর্জন, স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতা নিশ্চিতের মাধ্যমে জনসম্পৃক্ত কার্যকর ইউনিয়ন পরিষদ গড়তে ফুটবল মাঠে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন। তিনি বলেন, বেতাগা ইউনিয়ন পরিষদ এসডিজি ও এমডিজি বাস্তবায়নে অনেকাংশে এগিয়ে চলেছে। এই ইউনিয়ন পরিষদের ১৪টি স্ট্যাডিং কমিটি এত সক্রিয় যা কল্পনা করা যায় না। তিনি বলেন চেয়ারম্যান স্বপন দাশ প্রতিবন্দিদের কল্যানের জন্য ফান্ড গঠন, কন্যা বর্ত্তিকা প্রকল্প চালু ও তাদের-কে স্বাবলম্বী করার জন্য ফান্ড গঠন ও গরিব এবং মেধাবীদের শিক্ষাথীদের জন্য উচ্চশিক্ষা সহায়তা ও সম্প্রসারণ প্রকল্প চালু করে যে মহতী দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন তিনি তার প্রসংশা করেন। স্বশাসিত ইউনিয়ন পরিষদ এ্যাডভোকেসি গ্রæপ অব বাংলাদেশ এর প্রেসিডেন্ট ও বেতাগা ইউপি চেয়ারম্যান স্বপন দাশ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তৃতায় জেলা প্রশাসক তপন কুমার বিশ^াস বলেন, বাংলাদেশ যে আজ এগিয়ে যাচ্ছে তা বেতাগায় আসলে বুঝা যাবে। ফকিরহাটে এখন আর ভিক্ষুক নই, তাই এখন হতে আমরা বলব ফকিরহাট তথা বাগেরহাট আমীরের হাট। তিনি আরো বলেন, মাননীন প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নের্তৃত্বে দেশ আজ এগিয়ে যাচ্ছে। তাঁর এই ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখার জন্য সকলের প্রতি আহবান জানান। সিআইজি ফোরোমে সাধারন সম্পাদক মোঃ নাজমুল হুদা ও ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি অলিপ কুমার দাশ এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে সম্মানিত অতিথি হিসাবে আরো উপস্থিত ছিলেন ও বক্তৃতা করেন, উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভ’মি) রহিমা সুলতানা বসরা, শেখ হেলাল উদ্দিন ফাউন্ডেশনের সভাপতি অধ্যক্ষ অমিত রায় চৌধুরী, সদস্য সচিব ও উপজেলা আঃলীগের সাধারন সম্পাদক শিরিনা আক্তার, রুপালী ব্যাংক খুলনা বিভাগীয় প্রধান অশোক কুমার সিংহ রায়। এসময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন, বেতাগা ইউনিয়ন উচ্চশিক্ষা সহয়তা ও সম্প্রসারণ প্রকল্পের সদস্য সচিব আলহাজ¦ মোঃ নজরুল ইসলাম, প্রকল্পের সদস্য শিক্ষাবিদ দাশ শিশির কুমার, মৎস্য ও কৃষি সংক্রান্ত স্থায়ী কমিটির সভাপতি মোঃ ইউনুস আলী শেখ ও মোঃ তৌফিকুল ইসলাম প্রমুখ। অনুষ্ঠানে উচ্চশিক্ষা সহায়তা ও সম্প্রসারণ প্রকল্পের মাধ্যমে ৩০জন শিক্ষাথীকে ৩লক্ষ ৪০হাজার টাকা, প্রতিবন্ধি সংক্রান্ত প্রকল্প হতে ৮জন-কে ২৪হাজার টাকা ও কন্যা বর্ত্তিকা প্রকল্প হতে ৬জনকে ২৪হাজার টাকা প্রদান করা হয়। এছাড়া বেতাগার আধুনিকায়নে ও অর্থনৈতিক সমুদ্ধিতে যারা বিশেষ অবদান রেখেছেন, তাদেরকে ক্রেষ্ট দিয়ে সম্মানিত করা হয়। এর আগে ইউনিয়ন পরিষদের অর্থায়নে নির্মিত মাসকাটা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবনের উদ্ভোধন, প্রধানমন্ত্রী প্রদত্ত ঘরের উদ্ভোধন ও মাসকাটা এসএম মোহর আলী কমিউনিটি ক্লিনিকের সম্প্রসারিত ভবনের শুভ উদ্ভোধন করেন প্রধনি অতিথি। মেলায় ২২ষ্টল প্রদান করা হয়। এসময় শিক্ষক সাংবাদিক জনপ্রতিনিধি রাজনৈতিক সরকারী কর্মকর্তা কর্মচরী ও সুশীল সমাজের বিভিন্ন নেতৃবৃন্দরা উপস্থিত ছিলেন। ###