গণমানুষের জীবন মান উন্নয়নে নির্বাচনী ইশতেহারে পানি, স্যানিটেশন ও হাইজিন (ওয়াশ)-এর বিষয়টিকে গুরুত্ব প্রদানের জন্য রাজনৈতিক দলসমূহের প্রতি আবেদন

203
gb

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে রাজনৈতিক দলগুলোর নির্বাচনী ইশতেহারে সকল নাগরিকের জন্য নিরাপদ পানি, স্যানিটেশন ও হাইজিন (ওয়াশ) অন্তর্ভূক্তি নিশ্চিত করতে ওয়াশ সেক্টরের সাথে জড়িত নেটওয়ার্ক ও সংস্থাসমূহের পক্ষ থেকে আবেদন জানিয়েছেন। মঙ্গলবার বিকালে ওয়াটারএইড বাংলাদেশ এর মিডিয়া অ্যান্ড আউটরিচ অফিসার সামিয়া মল্লিক এক প্রেসবিজ্ঞপ্তিতে এ প্রতিনিধিকে এ তথ্য জানান। ওয়াটারএইড, ইউনিসেফ, ব্র্যাক, ওয়ার্ল্ড ভিশন, ওয়াটার.অরগ্ধসঢ়;, এফএসএম নেটওয়ার্ক, ফানসা, ডবিøউএসএসসি,বি, স্যানিটেশন অ্যান্ড ওয়াটার ফর অল এবং ওয়াশ অ্যালায়েন্স থেকে প্রেরিত প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে রাজনৈতিক দলসমূহের নির্বাচনী ইশতেহারে নি¤œল্লিখিত বিষয়গুলোকে অর্ন্তভুক্ত করার বিশেষভাবে অনুরোধ জানানো হয়েছে। দাবীগুলো হলে, সকলের জন্য আর্সেনিক- ও জীবাণুমুক্ত নিরাপদ সুপেয় পানির প্রাপ্যতা নিশ্চিত করতে সমন্বিত পানি সম্পদ ব্যবস্থাপনা ও নিরাপদ পানির যথোপযুক্ত প্রযুক্তির উন্নয়ন ও ব্যবহার করা, টেকসই ও নিরাপদ স্যানিটেশন ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে পয়ঃবর্জ্য ব্যবস্থাপনার (এফএসএম) যথাযথ বাস্তবায়নসহ জনসমাগমস্থল এবং সকল প্রতিষ্ঠানে নারী, শিশু ও প্রতিবন্ধীবান্ধব স্যানিটেশন সেবা নিশ্চিত করা, কিশোরী ও প্রজননক্ষম নারীদের মাসিক স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করতে স্যানিট্যারী ন্যাপকিন এবং ন্যাপকিন তৈরীতে ব্যবহৃত কাঁচামালের উপর বিদ্যমান সকল ধরনের শুল্ক ও কর মওকুফ করা, দুর্গম ও পিছিয়ে পড়া গ্রামীণ এলাকা এবং শহরের বস্তি ও নি¤œ আয়ের সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠীসহ সকলের জন্য নিরাপদ পানি, স্যানিটেশন ও হাইজিন (ওয়াশ) বিষয়ক অন্তর্ভূক্তিমূলক সেবা নিশ্চিত করতে ওয়াশ খাতে অর্থায়ন বৃদ্ধির পাশাপাশি শহর ও গ্রামের মধ্যে বিনিয়োগের ন্যায্যতা নিশ্চিত করা। প্রতিষ্ঠানের আশা হচ্ছে নাগরিকদের জন্য মানসম্পন্ন ওয়াশ সেবা নিশ্চিতকরণে নির্বাচনী ইশতেহারে উল্লেখিত সুপারিশসমূহের অর্ন্তভুক্তিকরণ একটি জোরালো ভ‚মিকা রাখবে এবং একইসাথে স্বাস্থ্য, শিক্ষা এবং অর্থনৈতিক খাতসমূহে জাতীয় উন্নয়নের অগ্রগতির ধারাকে চলমান রাখবে ।