ফকিরহাটে আট্টাকা কে,আলী পাইলট মাধ্যমিক স্কুলটি সরকারী করণের দাবী

163
gb

 ফকিরহাট প্রতিনিধি। বাগেরহাট জেলার ফকিরহাট উপজেলার সদরে অবস্থিত পুরাতন রূপসা-বাগেরহাট সড়কের পাশে মনোরম পরিবেশে আট্টাকা কেরামত আলী পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়টি অবস্থিত। বিদ্যারয়টি বিগত ০১/০১/১৯৬৯ ইং তারিখ প্রতিষ্ঠার পর থেকে অদ্যবদি সাফল্য ও কৃতিত্বের দাবিবার। মূল বিদ্যালয় থেকে উপজেলা প্রশাসনিক ভবন ও ফকিরহাট মডেল থানা মাত্র ৫০গজ দুরে অবস্থিত। বর্তমানে বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীর সংখ্যা প্রায় ৭০০জন। জেএসসি ও এসএসসি এবং জুনিয়র বৃত্তি পরীক্ষার ফলাফল উপজেলায় প্রথম ও দ্বিতীয় স্থানের মধ্যে অবস্থান করে থাকে। এছাড়া বিদ্যালয়টি ২০১৪ সালে সেরা প্রতিষ্ঠান নির্বাচিত হওয়ায় এক লক্ষ টাকা পুরস্কার লাভ করে। এমনকি ২০১৮ সালেও উপজেলা শ্রেষ্ঠ শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নির্বাচিত হওয়ার গৌরব অর্জন করেছে। এই বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা সাবেক গনপরিষদ সদস্য মরহুম শেখ আলী আহম্মেদ, যিনি ১৭৭১সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় ভারতে শরনার্থীদের নেতৃত্ব দেন। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সহচর ছিলেন। এমনকি বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তাকে চাচা বলে ডাকতেন, ২০০১ সালে জাতীয় সংসদ নির্বচনের সময় তিনি দলের কার্যক্রমের দায়িত্ব পালন করেন। শেখ আলী আহম্মেদ বাগেরহাট তথা ফকিরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগের একজন আপোষহীন প্রধান নেতা হওয়ার পরও তারই গড়া প্রতিষ্ঠান আট্টাকা কেরামত আলী পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়টি আজও সরকারিকরণ হয়নি। বিদ্যালয়ে ৪.৭৯ একর জায়গা রয়েছে। বিশাল খেলার মাঠ রয়েছে। এই মাঠে উপজেলার সকল প্রকার অনুষ্ঠান ও খেলাধুলা হয়ে থাকে। তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নিকট বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ সহ এলাকাবাসী আকুল আবেদন জানিয়েছেন মরহুম শেখ আলী আহম্মেদ এর প্রতিষ্ঠিত মাধ্যমিক বিদ্যালয়টি বিশেষ বিবেচনায় সরকারিকরণের দাবী জানান। এ ব্যাপারে অত্র বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক অসিম কুমার মজুমদারের সাথে কথা বলে জানা গেছে, সম্প্রতি বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ কর্তৃক বিদ্যালয়টি সরকারিকরণের দাবী জানিয়ে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত আবেদন করা হয়েছে। ###