লন্ডনের বাঙালী পাড়ায় ১৩ মিলিয়ন পাউন্ড ব্যয়ে নির্মিত হচ্ছে বিশ্বমানের মিউজিয়াম

5
gb

জিবিনিউজ 24 ডেস্ক //

শিশুদের কল্পজগতকে উন্মুক্ত করে দিতে বেথনাল গ্রীণ মিউজিয়ামের সংস্কার কাজ শুরু হচ্চেছ আগামী মে থেকে, ব্যয় হবে ১৩ মিলিয়ন পাউন্ড সম্পূর্ন নবসাজে সজ্জিত হতে যাচ্চেছ বেথনালগ্রীন মিউজিয়াম অব চাইল্ডহুড। মিউজিয়ামটিকে বিশ্বমানের করে গড়ে তোলার লক্ষ্যে ১৩ মিলিয়ন পাউন্ড ব্যয়ে এর সংস্কার কাজ শুরু হবে আগামী মে মাস থেকে। টানা দুই বছর সংস্কার শেষে এর উদ্বোধন করা হবে ২০২২ সালের মে মাসে। ফলে এই দুই বছর মিউজিয়ামটি বন্ধ থাকবে।

নস্টালজিয়া নয়, নানা উদ্ভাবনী কর্মকান্ডের মাধ্যমে শিশুদের কল্পজগতকে প্রসারিত করে বিশ্বপরিবর্তনে কাজে লাগানোম্ব- এই ধারনাকে সামনে রেখে নতুন করে এর ডিজাইনকে সাজানো হয়েছে। আকর্ষনীয় রং আর প্রাকৃতিক তথা দিনের আলোর ব্যবহার, আরো আন্দন্দময় খেলাধূলার পরিবেশ, খোলামেলা স্থান ইত্যাদিকে নতুন ডিজাইনে বিশেষ প্রাধান্য দেয়া হয়েছে।

এছাড়া ডিজাইনে ৩টি স্থায়ী গ্যালারীকেও গুরুত্ব দেয়া হয়েছে। ইমাজিন, প্লে এবং ডিজাইন এই নামে গ্যালারি ৩টি বিভক্ত থাকবে। এর উদ্দেশ্যই হচ্চেছ মিউজিয়ামটি যাতে ১৪ বছর পর্যন্ত শিশুকিশোরদের কাছে আরো ত্পার্যপূর্ন, আন্দন্দময় এবং আরামদায়ক হয়। এর সাথে যুক্ত হবে ১২৫ জনের ধারনক্ষমতা সম্পন্ন একটি স্থায়ী মঞ্চ, যে মঞ্চ থেকে প্রতিদিন বিভিন্ন ধরনের পারমেন্স করা হবে। ইস্ট লন্ডন বেইস আর্কিটেক কোম্পানী এওসি এর ডিজাইনের দায়িত্ব লাভ করেছে।

আর ২০২২ সালে যখন এর উদ্বোধন করা হবে তখন এতে স্থান পাবে শিশুদের কাছে আকর্ষনীয় এবং বিরল প্রায় ২ হাজার রকমের বিভিন্ন সামগ্রী। হলিউডের বিখ্যাত বিভিন্ন সিনেমার বিভিন্ন অরিজিনাল কস্টিউম এবং বিভিন্ন সামগ্রী এরসাথে যোগ হবে। এরমধ্যে অন্যতমগুলো হলো সুপারম্যান এবং ফ্রাংকেস্টাইনের দৈত্যের কস্টিউম, ম্যারি পপিনস এর ম্যাজিকাল আমব্রেলা ইত্যাদি। ভিক্টোরিয়া এন্ড আলবার্ট মিউজিয়ামের ডাইরেক্টর ট্রিস্টরাম হান্ট বলেন, এই সংস্কারের মাধ্যমে আমরা শিশু তথা পরিবারকে সম্পূর্ন বিনামূল্যে একটি স্মরনীয় দিন উপহার দিতে চাই। আমরা বিভিন্ন কর্মকান্ড আর বিশেষ পরিবেশ সৃষ্টির মাধ্যমে শিশুদের কল্পজগতকে উন্মুক্ত করে দিতে চাই যাতে করে তারা দুনিয়াকে বদলে দিতে ভূমিকা রাখতে পারে।

স্থানীয় এমপি রুশনারা আলী বলেন, লন্ডন বিশ্বের অন্যতম একটি উদ্ভাবনী শহর। এর মধ্যে শত শত ক্রিয়েটিভ ব্যবসা প্রতিষ্টান আমার নির্বাচনী এলাকায় অবস্থিত। আমি আনন্দিত যে, আমার নির্বাচনী এলাকায় তাদেরই সহযোগিতায় নতুন করে জন্ম নিতে যাচ্চেছ বেথনালগ্রীন চাইহ্বহুড অব মিউজিয়ামটি। আমার বিশ্বাস স্থানীয় কমিউনিটি তথা সবার জন্য এটি হবে একটি অসাধারন সংযোজন। উল্লেখ্য যে, বেথনালগ্রীণের এই মিউজিয়ামটি ১৮৭২ সালে উদ্বোধন করা হয়। ১৯৭৪ সালে এটি ভিক্টোরিয়া এন্ড আলবার্ট মিউজিয়াম গ্রুপের অন্তর্ভূক্ত হয়। সংস্কারের পর এটি বিশ্বের অন্যতম সেরা একটি চিলন্ড্রেন মিউজিয়াম হিসাবে আত“প্রকাশ করবে বলে সংশ্লিষ্টরা আশা করছেন।

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন