মেয়ের চিকিৎসার  জন্য ইতালীয় নাগরিকত্ব চাইলেন ব্রিটিশ বাংলাদেশি মা

79
gb

জিবি নিউজ।।

 বছরের অসুস্থ মেয়ে তাফিদা রাকিবকে ইতালিতে চিকিৎসার অনুমতি পাওয়া বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ব্রিটিশ বাবা-মা তার নাগরিকত্বের আবেদন করেছেন।মা সেলিনা বেগম বলেন, তাফিদা যেহেতু ইতালিতেই আছে, তার এখানে নাগরিকত্বের আবেদন করাই ভালো হবে।

বর্তমানে জেনোয়াতে গ্যাসলিনি শিশু হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন তাফিদা। গত ৩ অক্টোবর বৃহস্পতিবার যুক্তরাজ্যের হাই কোর্ট তাফিদার বাবা-মায়ের পক্ষে রায় দেয়। এর ফলে লাইফ-সাপোর্ট চিকিৎসার জন্য তাকে ইতালিতে নিয়ে যাওয়ার বাধা দূর হয়।

ইতালিতে এক সংবাদ সম্মেলনে সেলিনা বলেন, আমি তাফিদার সঙ্গে দেখা করেছি। সে এখন স্থিতিশীল। একপাশ থেকে অন্যপাশ হতে পারছে। তিনি বলেন, তাফিদার জন্য অর্থসংগ্রহ করা হচ্ছে। ‘অর্থ যেন শেষ না হয়’ সেই বিষয় খেয়াল রাখছেন তারা।

সেলিনা হোসেন বলেন, আমরা আর্থিক সাহায্য নিচ্ছি। স্পন্সররা এগিয়ে আসছেন। আমরা তার চিকিৎসা করাতে পারবো।

প্রায় সাত মাসের বেশি সময় ধরে যুক্তরাজ্যের রয়েল লন্ডন হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে রয়েছে ৫ বছরের বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত শিশু তাফিদা রাকিব। তাফিদার লাইফ সাপোর্ট খুলে ফেলা নিয়ে যুক্তরাজ্যের স্বাস্থ্য বিভাগ এনএইচএস ও তাফিদা পরিবার দ্বারস্থ হয় আদালতের। ইতালিতে নিয়ে যাওয়ার জন্য রয়েল লন্ডন হাসপাতাল ছাড়পত্র দিতে অপারগতা প্রকাশ করায় আদালতের শরণাপন্ন হন তাফিদার মা। পাশাপাশি লাইফ সাপোর্ট খুলে তাফিদাকে মৃত্যুর হাতে তুলে দেওয়ার অনুমতির আশায় আদালতের দ্বারস্থ হয় হাসপাতাল কর্তৃপক্ষও। তাফিদার মা সেলিনা রাকিব আদালতে বলেছেন, লাইফ সাপোর্ট খুলে ফেলা ‘সন্তানের জীবনাবসানের পক্ষে মা-বাবার সম্মতি দেওয়া ধর্মীয় বিধান মতে পাপ’।

gb

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More