পলাশবাড়ীতে প্রতারণামুলক অবৈধ লটারী খেলা বন্ধ করে দিলেন থানা পুলিশ

8
gb
ছাদেকুল ইসলাম রুবেল,গাইবান্ধা//
দিনাজপুর ও গাইবান্ধা জেলার সিমানা পলাশবাড়ী অংশে করতোয়া নদীকে ঘিরে সম্ভবণাময়ী পর্যটন এলাকায় পরিণত হয়েছে। এ অংশকে পরিকল্পিত ভাবে উন্নয়নের মাধ্যমে এখানে গড়ে উঠবে একটি পর্যটক শহর প্রয়োজন সঠিক পরিকল্পনা। প্রতি বছরের ন্যায় এবারো পবিত্র ঈদ উল আযহা উপলক্ষে ঈদের আগের দিন হতে পলাশবাড়ী উপজেলার সীমান্ত ঘেষা করতোয়া নদীর উপরে বেইলীবিজ্র পারে পর্যটকদের উপস্থিতি ছিলো লক্ষ করার মত।এ উপস্থিতি এক সপ্তাহ ধরে চলবে বলে জানান স্থানীয়রা। তারাও বলেন নদী আর বাধের পাশে বৃক্ষ ছায়ায় সবুজের সমারহ আর নৌকায় নদীতে কিছু সময় যেন আরো আনন্দময়। সৌন্দর্য বর্ধিত এই এলাকায় ইতোমধ্যেই পলাশবাড়ী উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে দৃষ্টি নন্দন পর্যটন এলাকা করার লক্ষে উদ্যোগ গ্রহন করেছে।আবার সম্প্রতি এই এলাকায় করতোয়া পাড়া আম বাগান স্মৃতি হাট ও বাজার স্থাপিত হওয়ায় জনসমাগম অতীতের যে কোন সময়ের তুলনায় বৃদ্ধি পেয়েছে ব্যাপক ভাবে। পলাশবাড়ী উপজেলায় এ অংশ বিশাল এক সম্ভবণার দ্বার উম্মোচিত হয়েছে। করোনা কালে স্বাস্থ্যবিধির তোয়াক্কা না করে দ্বিতীয় ঈদের দিন হতে গত দুই দিন থেকে ওই এলাকায় বিভিন্ন খাদ্য সামগ্রী বিক্রয়ের পাশাপাশি একটি বিশাল চক্র বাশ দিয়ে ঘিরে লটারীর নামে প্রতারনার মাধ্যমে সাধারণ মানুষের নিকট থেকে হাজার হাজার টাকা হাতিয়ে নিচ্ছিলো। এর আগে ঈদের দিন তারা ঘোড়াঘাট সীমানায় অবস্থান করলে ঘোড়াঘাট থানার অফিসার ইনচার্জ আমিরুল ইসলাম তা বন্ধ করে দেয়।এদিকে ঈদের ২য় দিন তারা স্থান পরিবর্তন করে পলাশবাড়ীর সীমানায় বিশাল আকারে লটারীর স্থান করে নিয়ে সকাল থেকে সন্ধা পর্যন্ত এই খেলা চালিয়ে যাচ্ছিলো।
খবর পেয়ে পলাশবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মাসুদার রহমান মাসুদের নির্দেশে এস আই হাসিব সঙ্গীয় পুলিশ ফোর্স ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে আয়োজকরা দিকবিদিক ছোটাছুটি করে পালিয়ে যায়। পরে পুলিশ বাশ দিয়ে ঘেরা উল্লেখিত স্থানটি ভেঙ্গে লটারী বন্ধ করে দেয়। ঘোড়াঘাট থানার ওসি আমিরুল ইসলাম জানান মাদক সন্ত্রাস জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে পুলিশ জিরো টলারেন্স ঘোষনা করেছে। একই সুরে কথা বলেন পলাশবাড়ী থানার ওসি মাসুদার রহমান মাসুদ তিনি বলেন মাদক জুয়া সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এদিকে দুই থানা পুলিশ যৌথ পদক্ষেপ দুই উপজেলার সচেতন মহলে বেশ প্রশংসিত হয়েছে। পাশাপাশি করোনায় স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য উক্ত স্থানে অযাথা জনসগম রোধে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করতে দেখা যায় থানা পুলিশের সদস্যদের ।