চাঁপাইনবাবগঞ্জে কোয়ারান্টাইনে দেড়শ জন বেড়ে ৮১২

54
gb

জাকির হোসেন পিংকু,চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি:
চাঁপাইনবাবগঞ্জে বুধবার (২৫’মার্চ) হোম কোয়রান্টাইনে ছিলেন ৮১২ জন। এদের সকলেই বিদেশ ফেরত।এই সংখ্যা এযাবৎ কালের মধ্যে সর্বাধিক। গত মঙ্গলবার (২৩’মার্চ) এ সংখ্যা ছিল ৭৬৯। একদিনের ব্যবধানে কোয়রান্টাইনে থাকার সংখ্যা বেড়েছে ৪৩ জন। তবে এদিন ১৪ দিনের সময় সম্পন্ন হওয়ায় কোয়ারান্টাইন থেকে বেরিয়ে গেছেন ১৫০ জন।
সিভিল সার্জন জাহিদ নজরুল চৌধুরী বুধবার রাতে তথ্যটি নিশ্চিত করে জানান, জেলার আরও ১৫০টি সুরক্ষা পোষাক (পিপিই-পারসোনাল প্রটেকশন ইকুইপমেন্ট) এসে পৌঁছেচে। এনিয়ে জেলায় ৩০০ সেট সুরক্ষা পোষাক এসে পৌঁছাল। এর মধ্যে সদর ব্যতীত ৪ উপজেলায় ৩৫টি করে ১৪০ সেট পোষাক দেয়া হয়েছে। সদর হাসপাতাল,সদর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স,সিভিল সার্জন অফিস,পুলিশসহ সংশ্লিষ্টদের দেয়া হয়েছে বাকী ১৬০ সেট পোষাক। আরও পোষাক আসবে।
সিভিল সার্জন বলেন, বুধবার পর্যন্ত চাঁপাইনবাবগঞ্জে করোনা আক্রান্ত সন্দেহভাজন কাউকে পাওয়া যায়নি।
সিভিল সার্জন আরও বলেন, বগুড়া সেনানিবাস থেকে ১১ পদাতিক ডিভিশনের সৈনিকরা একজন লেফটেণ্যাণ্ট কর্ণেলের নেতৃত্বে জেলায় অবস্থান নেয়ার প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। তারা জেলা প্রশাসনের সাহায্যে মাঠ পর্য়ায়ে কাজ করবেন।
এদিকে জেলা প্রশাসন করোনা মোকাবিলায় গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছে। বিজ্ঞপ্তিতে জনগণের করণীয় সম্পর্কে বিস্তারিত বলা হয়েছে। এদিকে পুলিশ প্রশাসনও জেলাব্যাপী কঠোর অবস্থান নিয়ে মানুষকে ঘরে রাখতে ও লোক সমাগম বন্ধ করতে তৎপরতা চালাচ্ছে।
এদিকে বুধবারও প্রচুর মানুষ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে বিভিন্ন উপায়ে দেশের বাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জে এসে পৌঁচেছেন। এদের অনেকে এমনকি ট্রাকে করেও দুরদুরান্ত থেকে এসেছেন।
অন্যদিকে ইতিমধ্রে গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপ ও প্রচারণায় মানুষের বাড়িতে থাকার প্রবণতা বাড়ছে বলে লক্ষ্য করা গেছে। বুধবার জেলাব্যাপী সড়ক ও জনবহুল স্থানগুলো ছিল অনেকটাই ফাঁকা। #####

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন