মুক্তিপণ আদায়ের উদ্দেশ্যে চাঁপাইনবাবগঞ্জে সৎ শিশু পুত্রকে অপহরণের দায়ে পিতার যাবজ্জীরন কারাদন্ড

72
gb

জাকির হোসেন পিংকু,চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি:
মুক্তিপণ আদায়ের উদ্দেশ্যে নিজ  সৎ শিশু পুত্রকে অপহরণের দায়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জে হালিমুজ্জামান রিপন নামে এক যুবককে যাবজ্জীবন কারাদন্ড,সেই সাথে ৫০ হাজার টাকা অর্থদন্ড অনাদায়ে আরও এক বছর কারাদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার (১৭’সেপ্টেম্বর) দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতণ দমন ট্রাইবুনাল-২ এর বিচারক শওকত আলী আসামীর অনুপস্থিতিতে দন্ডাদেশ ঘোষণা করেন।
সরকারী আইনজীবী শওকত আরা বেগম জানান,২০১৬ সালের ৯’জুলাই সকালে চাঁপাইনবাবগঞ্জের ভোলাহাট উপজেলার আদমপুর গড়পাড়া গ্রামের রেশমী বেগমের(৩১) বাড়ি থেকে রেশমীর প্রথম পক্ষের ৬ বছরের শিশু পুত্র আমির হামজা ওরফে জানিককে অপহরণ করে রেশমীর দ্বিতীয় পক্ষের স্বামী হালিমুজ্জামান রিপন (৩১)।
এর পর রিপন তার স্ত্রী রেশমীকে ফোন করে ছেলেকে বিক্রি করে দেয়া এমনকি মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন অংকের মুক্তিপণের টাকা দাবী করে। ঘটনাটি রেশমী পরদিন ১০ জুলাই চাঁপাইনবাবগঞ্জ র‌্যাব ক্যাম্পে  জানালে  র‌্যাব তাৎক্ষনিক মোবাইল ট্রাকিং এর মাধ্যমে রিপনের অবস্থান শনাক্ত করে।
এর পর ওইদিনই বিকেলে রাজশাহী থেকে ঢাকাগামী পদ্মা আন্ত:নগর ট্রেনে অভিযান চালিয়ে টয়লেটের ভেতর থেকে রিপনকে আটক ও অপহৃত শিশু আমির হামজাকে  উদ্ধার করে র‌্যাব।
এ ঘটনায় ওইদিনই রেশমী তার স্বামী রিপনকে আসামী করে ভোলাহাট থানায় মামলা করেন। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ও ভোলাহাট থানার তৎকালীন উপপরিদর্শক(এসআই) শিশির কুমার চক্রবর্তী ২০১৬ সালের ১৫ আগষ্ট রিপনকে একমাত্র অভিযুক্ত করে চার্যশীট দাখিল করেন।
এদিকে মামলায় জামিনে থাকা অবস্থায় আসামী রিপন পলাতক হলে ট্রাইবুনাল ৭ জনের সাক্ষী, প্রমাণ ও শুনানী শেষে রিপনকে দোষি সাব্যস্ত করে মঙ্গলবার দন্ডাদেশ প্রদান করেন। আসামী পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন আ্যাড.শাহীন আলম বিদ্যূৎ।

এই ওয়েবসাইটটি আপনার অভিজ্ঞতা উন্নত করতে কুকি ব্যবহার করে। আমরা ধরে নিচ্ছি যে আপনি এটির সাথে ঠিক আছেন তবে আপনি চাইলে অপ্ট-আউট করতে পারেন Accept আরও পড়ুন