২৪ বার এভারেস্ট জয় করে কামি রিটার বিশ্বরেকর্ড

66
gb

২৪ বার মাউন্ট এভারেস্ট জয় করে নেপালের পর্বতারোহী কামি রিটা শেরপা (৪৯) বিশ্বরেকর্ড গড়েছেন। মঙ্গলবার সকাল ৬টা ৩৮ মিনিটের দিকে নেপালের দিক থেকে এভারেস্টে ওঠেন তিনি।

এর আগে ১৫ মে ২৩তম বার বিশ্বের সর্বোচ্চ পর্বতশৃঙ্গে উঠে সবচেয়ে বেশি এভারেস্টে ওঠার রেকর্ড গড়েছিলেন কামি রিটা শেরপা। এক সপ্তাহের মধ্যে ফের সেখানে পৌঁছে নিজের রেকর্ডই ভাঙলেন ওই নারী।

নেপালের পর্যটন দফতরের কর্তকর্তা মীরা আচার্যের বরাত দিয়ে দা গার্ডিয়ান জানিয়েছে, উত্তর পশ্চিম দিক দিয়ে (নেপালের দিক দিয়ে) মাউন্ট এভারেস্টের ৮ হাজার ৮৫০ মিটার (২৯ হাজার ৩৫ ফুট) উচ্চতায় আরোহন করেন কামি রিটা।

পর্বতটিতে দুদিক থেকে উঠা যায়। একটি হচ্ছে- নেপালের দিক দিয়ে, আর অন্যটি হচ্ছে- তিব্বতের দিক দিয়ে। দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়া এবং বছরের বেশিরভাগ সময় পর্বতটি বরফাচ্ছন্ন থাকায় কেবল মার্চ থেকে মে মাস পর্যন্ত এটিতে আরোহন করার অনুমতি আছে।

পর্বতারোহীদের গাইড হিসেবে কাজ করা স্থানীয় অধিবাসীদের শেরপা বলা হয়। কামি রিটাও পেশায় একজন শেরপা।

এ বছর রেকর্ডসংখ্যক ৩৭৮ জনকে (জনপ্রতি ফি ১১ হাজার মার্কিন ডলার) পর্বতটিতে ওঠার অনুমতি দেয়া হয়। আগামী কয়েক সপ্তাহের মধ্যে বিশ্বের সর্বোচ্চ পর্বতশৃঙ্গে বিভিন্ন দেশের পর্বতারোহীদের একটি সম্মেলন হওয়ারও কথা রয়েছে।

১৯৯৪ সালে ২৪ বছর বয়সে প্রথম এভারেস্টে ওঠেন নেপালের সোলুখুম্বু জেলার থামে গ্রামের বাসিন্দা কামি। তারপর থেকে ২৫ বছরে মোট ২৪ বার এখানে পৌঁছলেন তিনি।

মাউন্ট এভারেস্টের পাশাপাশি কাঞ্চনজঙ্ঘা, চো-ইউ, লোতসে ও অন্নপূর্ণা-সহ হিমালয়ের ওই এলাকায় থাকা প্রায় প্রতিটি শৃঙ্গই জয় করেছেন কামি রিটা। ২৪ বার বিশ্বের সর্বোচ্চ শৃঙ্গ স্পর্শ করার এই লম্বা সফরে ২১ বার তার সঙ্গী ছিলেন আপা শেরপা ও ফুরবা তাশি শেরপা।

কামির সঙ্গে মোট ২১ বার এভারেস্টে ওঠার পর অবসর নেন তারা। কিন্তু, যুবক বয়স থেকেই যেন এভারেস্টের প্রেমে পড়ে গিয়েছিলেন কামি! আর তাতে ইন্ধন জোগায় শেরপার পেশা।

নেপালের পর্যটন দফতর জানিয়েছে, ১৯৫৩ সালে এডমন্ড হিলারি ও তেনজিং নোরগে প্রথম এই শৃঙ্গে ওঠেন। তারপর থেকে এখনও পর্যন্ত ৫ হাজারের বেশি পর্বতারোহী এখানে উঠেছেন।

gb
মন্তব্য
Loading...

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More