মৌলভীবাজারে কালবৈশাখীর তান্ডব: প্রথম ছোবলেই প্রাণ গেল বৃদ্ধের

90

ইউসুফ আহমদ ইমন, মৌলভীবাজার থেকে ||
মৌলভীবাজার জেলার উপর দিয়ে সোমবার (১৫ এপ্রিল) সকালে বয়ে যাওয়া কালবৈশাখীর ছোবলে শতাধিক ঘর-বাড়ি বিধস্ত ও গাছ-পালা উপড়ে পড়ে কয়েকটি উপজেলার বিভিন্ন সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়েগিয়েছিল। ঝড়ে গাছ ভেঙ্গে ১ জনের মৃত্যু হয়েছে। ঝড়ের তান্ডবে একাধিক স্থানে বিদ্যুৎতের তার ছিঁড়ে ও খুঁটি ভেঙ্গে বিদ্যুৎ সরবরাহ ব্যবস্থা বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে।
বিদ্যুৎ বিহীন অবস্থায় অন্ধকারে রয়েছে পুরো মৌলভীবাজারের,বড়লেখা, কুলাউড়া, কমলগঞ্জ সহ অসংখ্য গ্রামা ল। স্থানীয় লোকজন জানান, সকালের দিকে হঠাৎ কালবৈশাখীর ছোবল আঘাত হানে। প্রায় ঘন্টা ব্যাপি ঝড় ও ভারি বৃষ্টিপাতের সঙ্গে শিলাবৃষ্টিতে জন জীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে। এসময় গরম বাতাশ অনুভূত হয়। ঝড়ে কয়েক শতাধিক গাছ-পালা উপড়ে পড়ে। কয়েকটি স্থানে এই দুই সড়কের উপর ঝড়ে গাছ-পালা ভেঙ্গে ও উপড়ে পড়েছে। এ কারণে সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। ঝড় হয়েছে জুড়ী ও শ্রীমঙ্গলেও। তবে ক্ষতির বিবরণ পাওয়া যায়নি।
এদিকে কালবৈশাখি ঝড়ে গাছের ডাল ভেঙে পড়ে নিমার আলী (৬০) নামের এক ব্যক্তির মৃত্যু হয়েছে। সোমবার (১৫ এপ্রিল) সকালে নয়টায় জেলার বড়লেখা উপজেলার দক্ষিণভাগ উত্তর ইউনিয়নের গৌরনগর গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। নিহত নিমার আলী ওই এলাকার মৃত জোয়াদ আলীর ছেলে।
স্থানীয় ইউপি সদস্য রিয়াজ উদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, সকালে নিমার আলী বাড়ির উঠোনে ছিলেন। এসময় প্রচন্ড ঝড় শুরু হলে ঘরের পাশে থাকা আম গাছের একটি বড় ডাল নিমার আলীর ওপর ভেঙে পড়ে। এতে তিনি গুরুতর আহত হন। আহতবস্থায় স্বজনরা তাকে হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

মন্তব্য
Loading...