জেএসডি কেন্দ্রীয় কার্যকরী কমিটির সভার সিদ্ধান্ত

ঐক্যবদ্ধ শান্তিপূর্ন আন্দোলনের মাধ্যমে বর্তমান অনির্বাচিত সরকারের অবসান করতে হবে

84

প্রেস বিজ্ঞপ্তি ||

জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল-জেএসডি জাতীয় কেন্দ্রীয় কার্যকরী কমিটির সভার প্রস্তাবে বলা হয়েছে, ঐক্যবদ্ধ শান্তিপূর্ন আন্দোলনের মাধ্যমে বর্তমান অনির্বাচিত সরকারের অবসান করতে হবে। এর জন্য ঐক্যফ্রন্টকে শক্তিশালী উদ্যোগের মধ্য দিয়ে জনগণের গণতান্ত্রিক অধিকার, ভোটাধিকার সহ নির্দলীয় সরকারের অধীনে অবিলম্বে নতুন ভাবে জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠান নিশ্চিত করতে হবে। ঐক্যফ্রন্টের আন্দোলনের সাথে সাথে স্বাধীন দেশের উপযোগী রাজনীতি, রাষ্ট্র ব্যবস্থাপনা ও সংবিধান নিশ্চিত করার জন্য দশ দফার ভিত্তিতে জেএসডি’র দলীয় আন্দোলন জোরদার করতে হবে।

সভায় ঐক্যফ্রন্টের আন্দোলনের অংশ হিসেবে আগামী ৬ ফেব্রæয়ারী ভোট ডাকাতির প্রতিবাদে কালো ব্যাজ ধারণ এবং ২৪ ফেব্রæয়ারী গণশুনানীর কর্মসূচী সফল করার লক্ষ্যে জেএসডি’র পক্ষ থেকে জোরালো উদ্যোগ গ্রহনের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

সভায় ২৯ তারিখ রাত থেকে ৩০ ডিসেম্বর যে ভোট ডাকাতির নির্বাচন হয়েছে এমন সুষ্ঠুভাবে উপজেলা নির্বাচন হবে মর্মে ঘোষণার পর জেএসডি দলীয়ভাবে উপজেলা নির্বাচন বর্জনের সিদ্ধান্ত গ্রহন করে।

সভায় জেএসডি’র উদ্যোগে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট গঠনকে একটি সময়োচিত উদ্যোগ হিসেবে আখ্যায়িত করা হয় এবং আগামী দিনে ঐক্যফ্রন্টে থেকে একে আরো শক্তিশালি করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

সভায় উপজেলা শিল্পা ল, পৌরসভা, মহানগর ও জেলা সম্মেলন সমাপ্ত করে জেএসডি’র কেন্দ্রীয় কাউন্সিল ২০১৯ সালের শেষের দিকে অনুষ্ঠানের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

আজ সকাল ১১ টায় দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে দলের সভাপতি জনাব আ স ম আবদুর রব এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত এ সভায় বক্তব্য রাখেন জেএসডি সাধারণ সম্পাদক জনাব আবদুল মালেক রতন, মিসেস তানিয়া রব, শহীদ উদ্দিন মাহমুদ স্বপন, জনাব খোশ লেহাজ উদ্দিন খোকা, এ্যাড. আবদুর রহমান, এম এ আউয়াল, সোহরাব হোসেন, সুলতান আহমেদ বাচ্চু, এস এম আনছার উদ্দিন, কামাল উদ্দিন পাটোয়ারী, এ্যাড. সৈয়দ বেলায়েত হোসেন বেলাল, মোশারফ হোসেন, আহসান উদ্দিন চৌধুরী সুইট, এস এম রানা চৌধুরী, অধ্যক্ষ আবদুল মোত্তালিব, মনিরুদ্দিন মাস্টার প্রমুখ ।

মন্তব্য
Loading...