জেলেদের কাছ থেকে মাছ পাওয়ার ক্ষেত্রে তাদেরকে ভিন্ন রকম এক মূল্য দিতে হয় কেনিয়ার নারীদের

212

জিবি নিউজ 24 ডেস্ক //

কেনিয়ায় ভিক্টোরিয়া লেকের পার্শ্ববর্তী এলাকার নারীরা মাছ বিক্রি করেই জীবিকা নির্বাহ করেন। তবে জেলেদের কাছ থেকে মাছ পাওয়ার ক্ষেত্রে তাদেরকে ভিন্ন রকম এক মূল্য দিতে হয়।

জানা গেছে, জেলেরা মাছ ধরতে যাওয়ার আগে কিংবা পরে তাদের সঙ্গে যৌন সম্পর্ক করতে হয় মাছ নিতে যাওয়া নারীদের। এ ধরনের ব্যবসাকে স্থানীয়রা ‘জাবোয়া’ বলে থাকেন। তবে এখন অনেকেই সেই ব্যবসা থেকে বের হওয়ার চেষ্টা করছেন।

ভোরের আলো ফোটার আগেই নৌকা নিয়ে বের হয়ে পড়েন জেলেরা। তবে কেবল পুরুষরাই মাছ ধরতে যেতে পারেন। নারীদের কখনো নৌকা নিয়ে মাছ ধরতে যেতে দেওয়া হয় না।

সকালে যখন জেলেরা মাছ ধরে ফেরত আসেন, তখন মাছ নেওয়ার জন্য নারীরা দাঁড়িয়ে থাকেন পাড়ে। মাছের পরিমাণ দেখেই নারীরা বুঝে নেন, কোন জেলের কাছে গেলে চাহিদামতো মাছ পাওয়া যাবে।

সেখানকার ৩৫ কেজি ওমেনা মাছের দাম প্রায় আটশ ৫০ টাকা। দাম চুকানোর পরেও বাড়তি মূল্য হিসেবে যৌন সম্পর্ক করতে হয়। চাহিদার তুলনায় যোগান অনেক কম হওয়ায় নারীরা তা পেতে বিছানায় যেতে রাজি হন।

এ ধরনের সম্পর্কের ফলে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে এইচআইভি আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। ফলে আয়ের নতুন উৎস খুঁজে নেওয়ার চেষ্টা করছেন অনেকেই। বিভিন্ন সংস্থা এই নারীদের বিকল্প কর্মসংস্থানের পথ দেখিয়ে দিচ্ছে। কেউ কেউ কাদামাটির চুলা বানিয়ে জীবিকা নির্বাহ করছেন। আবার কেউ নিজেই মাছ চাষের চেষ্টা করছেন।

মন্তব্য
Loading...