Bangla Newspaper

খালেদা-তারেক লন্ডনে বসে কি করছেন তার তদন্ত হওয়া দরকার

0 47

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া ও তাঁর ছেলে তারেক রহমান লন্ডনে বসে কি ষড়যন্ত্র করছেন এর তদন্ত হওয়া প্রয়োজন।

তিনি আজ মঙ্গলবার বিকালে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমণ্ডিস্থ রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক যৌথসভা শেষে সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন।

 

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘খালেদা জিয়া ও তাঁর বড় ছেলে লন্ডনে বসে কি ষড়যন্ত্রের জাল বুনছেন, তা জাতি জানতে চায়। এর তদন্ত হওয়া দরকার। তদন্তে সাহায্য করার জন্য স্কটল্যান্ড ইয়ার্ড, এমআই সিক্সসহ ব্রিটিশ গোয়েন্দা সংস্থাগুলোকে আমরা অনুরোধ করছি। ’

আগামী ৭ অক্টোবর জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭২তম অধিবেশন শেষে প্রধানমন্ত্রীর দেশে ফেরা উপলক্ষে গণসংবর্ধণা সফল করতে আওয়ামী লীগের সঙ্গে সহযোগী ও ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক, ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক এবং ঢাকা মহানগরের সকল দলীয় সংসদ সদস্যদের সঙ্গে এই যৌথ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

প্রধান বিচারপতিকে নিয়ে বিএনপি নেতাদের দেয়া বক্তব্যের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, যে দল থেকে এ অভিযোগ করা হচ্ছে সেই দলের নেত্রী কি কারণে এতদিন বিদেশে আছেন? অসুস্থতার কথাই তো বলেছিলেন। সময় ছিল দুই মাস। এখন দুই মাস পেরিয়ে তিন মাস, তিন মাসের পরেও আরো কয়েকদিন। তিনি এখনো এলেন না।

তিনি বলেন, রোহিঙ্গা সংকটে আজকে সারা দুনিয়ায় আলোড়ন, সেই আলোড়ন বিএনপির চেয়ারপারসনের মধ্যে পেলাম না।

সংকটের শুরু থেকে আজ পর্যন্ত আমাদের পার্টি, আমি নিজেই শেখ হাসিনার নির্দেশে রোহিঙ্গাদের মাঝে পড়ে আছি।

কাদের বলেন, লোক দেখানো ফটোসেশনের জন্য তাদের দলের কেউ কেউ গেলেন। আমি সেখানে ২০ দিন ছিলাম। আর মির্জা ফখরুল সাহেব গেলেন মাত্র এক দিন। আর এক দিন গিয়েও শুধু অভিযোগের কথা বলা। সারা দুনিয়া বলছে সরকার সফল, আর বিএনপি বলছে সরকার ব্যর্থ। দেশের জনগণ বলছে এ সংকটে সময়োচিত নেতৃত্ব দিয়েছেন বঙ্গবন্ধু কন্যা, কিন্তু এ প্রশংসা বিএনপি করতে পারেনি।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, নেতিবাচক রাজনীতি করতে করতে বিএনপি যেভাবে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ছে আমার কাছে মনে হয় কখন যে লাইফ সাপোর্টে নিয়ে যেতে হয়। সেই অবস্থায় আসতে এ দলের আর বেশি বাকি নেই।

Comments
Loading...